সাইপ্রাস ইস্যুতে তুরস্ককে ধুয়ে দিলো ভারত 

সাইপ্রাস ইস্যুতে তুরস্ককে ধুয়ে দিলো ভারত 
প্রতীকী ছবি।

১৯৭৪ সাল থেকে সাইপ্রাসের উত্তারাঞ্চল দখল করে রেখেছে তুরস্ক । যা জাতিসংঘের নিরাপত্তা কাউন্সিলের রেজ্যুলেশনের পরিপন্থী। এই তুরস্কই আবার কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতের বিরুদ্ধে পাকিস্তানকে সমর্থন দিয়ে আসছে। এ নিয়ে তুরস্ককে একহাত নিলেন জাতিসংঘের ভারতের প্রতিনিধি সীমা পুজানি।

এ নিয়ে জাতিসংঘের ভারতের প্রতিনিধি সীমা পুজানি বলেন, নিরাপত্তা কাউন্সিলের রেজ্যুলেশন অনুযায়ী, আমরা তুরস্ককে পরামর্শ দেবো যাতে তারা মেনে চলে।

১৯৭৪ সালে গ্রিসের সামরিক শাসকরা সাইপ্রাসে অভ্যুত্থান ঘটায়। তার প্রতিক্রিয়ায় উত্তর সাইপ্রাস অভিযান করে তুরস্ক। জাতিসংঘ তাকে বেআইনি আখ্যা দিয়েছে। গ্রিস জানায়, তুরস্কের উদ্দেশ্য, পুরো সাইপ্রাস দখল করে নেয়া।

১৯৮৩ সালের ১৫ নভেম্বর টার্কিশ রিপাবলিক অফ নর্দান সাইপ্রাস(টিআরএনসি) গঠিত হয়। তারপরই ভারোশার ভোলবদল হয়। একদা যে সমুদ্রসৈকত ছিল বড়লোক ও বিখ্যাত লোকেদের অন্যতম পছন্দের জায়গা, তা ভুতুড়ে শহরে পরিণত হয়। বড় বড় বিলাসবহুল রিসর্ট, হোটেল এখন ভেঙে পড়েছে। গত বছরের ৮ অক্টোবর তুরস্কের সেনা ভারোশাকে আংশিকভাবে খুলে দেয়।

ইত্তেফাক/এআর

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x