নজরদারির জন্য রাহুল গান্ধীর ফোনও নিশানা করা হয়

নজরদারির জন্য রাহুল গান্ধীর ফোনও নিশানা করা হয়
প্রশান্ত কিশোর, অশ্বিনী বিষ্ণু ও রাহুল গান্ধী। ছবি: সংগৃহীত

ইসরায়েলের এনএসও সংস্থার তৈরি পেগাসাস স্পাইওয়্যার কাজে লাগিয়ে বিশ্বজুড়ে মানবাধিকারকর্মী, সাংবাদিক, আইনজীবী, রাজনীতিকদের ফোনে আড়িপাতার চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস হয়েছে। সেই তালিকায় ভারতের প্রধান বিরোধী দল কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী, কেন্দ্রীয় সরকারের তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী অশ্বিনী বিষ্ণু এবং নির্বাচনী কৌশলী প্রশান্ত কিশোরেরও নাম আছে। খবর প্রকাশ করেছে এনডিটিভি ও দ্য গার্ডিয়ান।

প্রতিবেদনে বলা হয়, অভিযোগ উঠেছে, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন ক্ষমতাসীন বিজেপি সরকার পেগাসাসের মাধ্যমে বিরোধী দলীয় রাজনীতিক ও আরও অন্তত ৪০ সাংবাদিকের ফোনে আড়ি পেতেছে।

দ্য গার্ডিয়ান জানিয়েছে, প্রধান বিরোধী নেতা রাহুল গান্ধীকে সম্ভাব্য নজরদারির জন্য অন্তত দু’বার নিশানা করা হয়েছিল। তিনি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির অন্যতম প্রতিদ্বন্দ্বী। তালিকায় আরও আছেন বিজেপি সরকারের দুই মন্ত্রী, বিরোধী তিন নেতা, সাংবিধানিক পদে আসীন এক ব্যক্তি, ৪০ জন সাংবাদিক, অনেক ব্যবসায়ী, শিল্পপতি, সমাজকর্মী, সরকারি আমলা ও আইনজীবীর নাম। তারা সকলেই সরকারের সমালোচক হিসেবে পরিচিত।

২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনের আগে রাহুল গান্ধীর ফোন নজরদারির তালিকায় নেওয়া হয়।

অমিত শাহ'র ছেলেকে নিয়ে প্রতিবেদন করে বিপাকে সাংবাদিক

জয় শাহের ব্যবসা-বাণিজ্য নিয়ে অনুসন্ধানী প্রতিবেদন করেছিলেন ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য ওয়্যারের প্রতিবেদক রোহিনী সিং। তিনিসহ দেশটির আরও অন্তত ৩৮ জন সাংবাদিকের ফোনে আড়িপাতা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

প্যারিসভিত্তিক অলাভজনক সংস্থা ফরবিডেন স্টোরিজ এবং আন্তর্জাতিক মানবাধিকার সংস্থা অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের হাতে সম্প্রতি এ সংক্রান্ত একটি ডাটাবেস এসেছে। সেখানে ৫০ হাজারের বেশি ফোন নম্বর রয়েছে।

ফাঁস হলো গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তিদের স্মার্টফোনে আড়িপাতার ঘটনা

পেগাসাস মূলত একটি ম্যালওয়্যার। এর ব্যবহারে আইফোন ও অ্যানড্রয়েড ফোনের সব মেসেজ, ছবি, ইমেইল, কল রেকর্ড বের করা সম্ভব। এই ম্যালওয়্যার ফোন ব্যবহারকারীর অজ্ঞাতেই মাইক্রোফোন চালু করে দেয়। যার কারণে স্মার্টফোন ব্যবহার না করলেও এটি আশপাশ থেকে শব্দ গ্রহণ করতে থাকে।

ইত্তেফাক/টিএ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x