মহারাষ্ট্রে ভূমিধস ও বন্যায় মৃত্যু বেড়ে ১২৫

মহারাষ্ট্রে ভূমিধস ও বন্যায় মৃত্যু বেড়ে ১২৫
ছবি: সংগৃহীত

মুষলধারে বৃষ্টির কারণে সৃষ্ট বন্যা ও ভূমিধসে ভারতের মহারাষ্ট্রের বিভিন্ন অঞ্চলে এখন পর্যন্ত ১২৫ জনের মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। শনিবার (২৪ জুলাই) স্থানীয় কর্তৃপক্ষের বরাত দিয়ে এ তথ্য জানায় বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ভারতের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য মহারাষ্ট্রে ২৪ ঘণ্টায় সর্বোচ্চ ৫৯৪ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। বন্যা ও ভূমিধসে সৃষ্ট কাদা আর ধ্বংসস্তূপের মধ্যে চাপা পড়াদের উদ্ধারে অনেক ক্ষেত্রেই বেগ পেতে হচ্ছে উদ্ধারকর্মীদের। বন্যার পানিতে তলিয়ে যাওয়া বাড়িঘর থেকেও দুর্গতদের উদ্ধারের চেষ্টা চলছে। অপেক্ষাকৃত নিচু অঞ্চলের কয়েক'শ গ্রাম বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

People use their mobile phones to take pictures of a collapsed building following rains in Mumbai, India, July 23, 2021. REUTERS/Stringer

ভারতের পশ্চিম উপকূলের বিভিন্ন এলাকায় ৫৯৪ মিলিমিটার (২৩ ইঞ্চি) বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে। হিল স্টেশন মহাবলেশ্বরে ২৪ ঘণ্টায় রেকর্ড সর্বোচ্চ ৬০ সেন্টিমিটার বৃষ্টি হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, চলতি মাসেই চার দশকের মধ্যে সর্বোচ্চ বৃষ্টিপাত দেখলো মহারাষ্ট্র। বেশ কয়েক দিন ধরে চলা এ বর্ষণে কয়েক লাখ মানুষের জীবন দুর্বিসহ হয়ে পড়েছে। সেই সঙ্গে প্রধান নদীগুলোতে তীব্র ভাঙ্গনের আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, মুম্বাইয়ের ১৮০ কিলোমিটার দক্ষিণ-পূর্বের এলাকা তালিয়েতে এ পর্যন্ত ৪২ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। ৩৬ ঘণ্টার বেশি সময় ধরে আরও প্রায় ৪০ জন ধ্বংসস্তূপে আটকে আছে।

Rescue workers evacuate people from a flooded area to safer places after heavy rains in Kolhapur in the western state of Maharashtra, India, July 23, 2021. REUTERS/Abhijeet Gurjar

এদিকে কর্তৃপক্ষ বলছে, বন্যাদুর্গত এলাকাগুলো থেকে প্রায় ৯০ হাজার মানুষকে উদ্ধার করা হয়েছে। আরও চারটি এলাকায় ভূমিধসে নিখোঁজদের সন্ধানে অভিযান চলছে। ভারতীয় নৌবাহিনী এবং সেনাবাহিনী উপকূলীয় অঞ্চলে উদ্ধার অভিযানে সহায়তা করছে।

বন্যায় প্রাণহানির খবরে শোক জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে শুক্রবার তিনি জানান, মহারাষ্ট্রের আবহাওয়া পরিস্থিতি নিবিড়ভাবে পর্যবেক্ষণ করা হচ্ছে। দুর্গতদের সহায়তারও আশ্বাস দেন তিনি।

ইত্তেফাক/জেডএইচডি

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x