পরমাণু বোমা বানানোর ধারেকাছেও নেই ইরান: মোসাদের সাবেক প্রধান

পরমাণু বোমা বানানোর ধারেকাছেও নেই ইরান: মোসাদের সাবেক প্রধান
ইয়োসি কোহেন। ছবি: সংগৃহীত

ইসরায়েলি গোয়েন্দা সংস্থা মোসাদের সাবেক প্রধান ইয়োসি কোহেন বলেছেন, ইরান পারমাণবিক অস্ত্র অর্জনের কাছাকাছি অবস্থানেও নেই। দেশটি যদি পরমাণু অস্ত্র অর্জনের সেই পর্যায়ে যায় কিংবা সে ধরনের কিছুর উন্নয়ন সাধন করে, তাহলে ইসরায়েল তাদের থামিয়ে দেওয়ার মতো সামর্থ্য রাখে। খবর প্রকাশ করেছে দ্য জেরুজালেম পোস্ট।

মোসাদের সাবেক প্রধান বলেন, ‘অনেক গুঞ্জন শোনা গেলেও আমি মনে করি তেহরান পারমাণবিক বোমা বানানোর ধারেকাছেও নেই। বিশ্বশক্তির সর্বাত্মক প্রচেষ্টার কারণেই তেমনটি হতে পারছে না। মঙ্গলবার (১২ অক্টোবর) জেরুজালেম পোস্টের এক সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

No description available.

ইয়োসি কোহেন বলেন, এটি আমাদের বিশ্বাস যে ইরান তেমন পর্যায়ে নেই। আর যদি তেমন কিছু হতে থাকে, তাহলে আমরা এর প্রতিহত করব। সব দিক বিবেচনায় আমরা মনে করি ইরান বর্তমানে দুর্বল অবস্থানে রয়েছে।

সাবেক মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও গত শনিবার অভিযোগ করেন, বাইডেন প্রশাসন জেরুজালেমে ইসরায়েলের অবস্থানকে দুর্বল করেছে। একই সঙ্গে তারা তেহরানকে শক্তিশালী করেছে। এর পরই ইয়োসি কোহেনের পক্ষ থেকে এমন বক্তব্য এলো।

এদিন জেরুজালেম পোস্টের দশম বার্ষিক সম্মেলন ছিল। সম্মেলনে অংশ নিয়েই তিনি এসব কথা বলেন। এর আগে মাইক পম্পেও বলেছিলেন, উপসাগরীয় অঞ্চল থেকে ইসরায়েলের প্রতি হুমকি মোকাবিলায় ট্রাম্প প্রশাসন কাজ করে গেলেও বাইডেন প্রশাসনের সেদিকে নজর নেই। জো বাইডেন অবশ্য ইতিপূর্বে বলেছেন, তার প্রশাসন কখনো ইরানকে পারমাণবিক অস্ত্র তৈরি করতে দেবে না।

ইসরায়েলের রাজনীতিকরা দীর্ঘদিন থেকে বলে আসছেন, ইরান খুব শিগিগরই পারমাণবিক বোমা তৈরির সক্ষমতা অর্জন করতে যাচ্ছে। তবে বিষয়টিকে এভাবে দেখছেন না ইসরায়েলি গোয়েন্দারা। ইয়োসি কোহেনের বক্তব্যে তেমনটিই ফুটে উঠল। এ সময় তিনি ২০১৫ সালে ইরানের সঙ্গে ছয় বিশ্বশক্তির করা পরমাণু চুক্তির কথাও তুলে ধরেন। কোহেন তখনকার জয়েন্ট কো-অপারেশন প্ল্যান অব অ্যাকশন সম্পর্কে বলেন, বাস্তবিক অর্থে এর ভুল নাম দেওয়া হয়েছে।

ইত্তেফাক/টিএ

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x