ঢাকা রবিবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ৭ আশ্বিন ১৪২৬
৩০ °সে


স্কুলে যৌনতায় মত্ত শিক্ষক, গণধোলাই দিলেন স্থানীয়রা

স্কুলে যৌনতায় মত্ত শিক্ষক, গণধোলাই দিলেন স্থানীয়রা
শিক্ষক ও অঙ্গনওয়াড়ি কর্মী আপত্তিকর অবস্থায় দেখে গণধোলাই দেয় স্থানীয়রা। ছবি: সংগৃহীত

স্কুল ছুটি হয়েছে। বাড়ির পথে ধরেছে শিক্ষার্থীরা। বাড়ি যাওয়ার জন্য ব্যস্ততা তুঙ্গে শিক্ষকদের। কিন্তু এক শিক্ষক এবং অঙ্গনওয়াড়ি কর্মীর দেখা মিলছে না। দু’জনেই একটি ঘরে বদ্ধ। কী করছেন তারা? বন্ধ দরজা সামান্য ফাঁক করে চোখ রাখতেই অবাক হয়ে গেলেন সকলেই। ঘরের মধ্যে তখন উদ্দাম যৌনতায় মত্ত দু’জনেই। লজ্জাজনক এই ঘটনাটি ঘটেছে তামিলনাড়ুর নামাক্কলের উদুপ্পমের সরকারি স্কুলে।

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবর অনুযায়ী, তামিলনাড়ুর নামাক্কলের উদুপ্পমের সরকারি স্কুলের শিক্ষক তিনি। ওই স্কুলেই চলে (আইসিডিএস) অঙ্গনওয়াড়ি। গত কয়েক মাস ধরে ওই অঙ্গনওয়াড়ির এক কর্মীর সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক তৈরি হয় অভিযুক্ত শিক্ষকের। সেই সুবাদে প্রায়শই স্কুলে আপত্তিকর অবস্থায় দেখা যেত তাদের। স্কুলেরই কিছু ছাত্র হাতেনাতেও তাদের বেশ কয়েকবার ধরে ফেলেছে। তার জেরেই মুখে মুখে ছড়িয়ে পড়েছে দু’জনের প্রেমকাহিনী। বিষয়টি জানাজানি হয়ে গিয়েছে ছাত্রদের বাবা-মার কাছেও। তারই মাঝে মঙ্গলবার ছুটির সময় দু’জনেই নিখোঁজ হয়ে যায়। প্রত্যেকেই ভাবেন দু’জনে হয়তো একসঙ্গে রয়েছেন। যেমন ভাবা, তেমনই কাজ। স্কুলেরই একটি বন্ধ ঘরের দরজা খুলে চক্ষু চড়কগাছ স্থানীয়দের। তারা দেখেন ঘরের মধ্যে উদ্দাম যৌনতায় মত্ত শিক্ষক এবং অঙ্গনওয়াড়ি কর্মী। আপত্তিকর অবস্থাতেই গ্রামবাসীরা তাদের ধরে ফেলে।

আরো পড়ুন: গাড়ি থেকে পড়ে গেলো শিশু, বাড়ি পৌছে ঘুম ভাঙল মা-বাবার

দরজা ঠেলে সোজা ওই ঘরে ঢুকে পড়েন স্থানীয়রা। আপত্তিকর অবস্থায় তাদের দেখতে পেয়েই রেগে যান গ্রামবাসীরা। শিক্ষককে বেধড়ক মারধর করা হয়। মহিলা অবশ্য ততক্ষণে এলাকা ছেড়েছেন। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় পুলিশ। শিক্ষককে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়। অভিযুক্তের বিরুদ্ধে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা নেওয়ার কথা জানিয়েছে প্রধান শিক্ষক। এছাড়া ওই অঙ্গনওয়াড়ি কর্মীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থার ইঙ্গিত দিয়েছে সংশ্লিষ্ট দপ্তর।

ইত্তেফাক/বিএএফ

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন