মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারি ২০২২, ৪ মাঘ ১৪২৮
দৈনিক ইত্তেফাক

ইংলিশ চ্যানেলে নিহত ২৭: পরস্পরকে দুষছে ফ্রান্স-ইংল্যান্ড

আপডেট : ২৫ নভেম্বর ২০২১, ১৯:১৬

ইংলিশ চ্যানেলে ইনফ্লেটেবল ডিঙি ডোবার ঘটনায় এখন পর্যন্ত ২৭ জন মারা গেছেন। এ নিয়ে পরস্পরকে দোষারোপ করছে ইংল্যান্ড ও ফ্রান্স। বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) এসব জানিয়েছে বার্তাসংস্থা রয়টার্স।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ফ্রান্সের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জেরাল্ড ডারমানিন বলেছেন, 'ইংল্যান্ডের অভিবাসী ব্যবস্থাপনা খুবই খারাপ। এটা একটি আন্তর্জাতিক সমস্যা। আমরা আমাদের বেলজিয়ান, জার্মান এবং ব্রিটিশ বন্ধুদের বলি, তারা যেন আন্তর্জাতিক পর্যায়ে পাচারকারীদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে আমাদের সাহায্য করে।' ব্রিটেনের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী প্রীতি প্যাটেল জানিয়েছেন, তিনি ডারমানিনের সঙ্গে কথা বলবেন। এর আগে, ইংল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছেন, অভিবাসীদের পারাপার বন্ধ করতে ফ্রান্সের আরও কিছু করা উচিত

ইংলিশ চ্যানেল পাড়ি দিয়ে ইংল্যান্ডে যাওয়ার পথে অন্তত ২৭ শরণার্থী অভিবাসী মারা গেছে। স্থানীয় সময় বুধবার (২৪ নভেম্বর) ফ্রান্সের উত্তর উপকূলে ঘটনাটি ঘটে । ফরাসি পুলিশ এবং ক্যালাইসের মেয়র নাতাচা বাউচার্ট বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। বিএফএম টেলিভিশনকে মেয়র জানান, মৃতের সংখ্যা ২৭ জনে দাঁড়িয়েছে।

ইত্তেফাক/এসএ

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

নিয়মনীতি সবার জন্য সমান হলে বরিসকে বিদায় নিতেই হবে

পুলিশি নিরাপত্তার দাবি জানিয়ে আইনি লড়াইয়ে প্রিন্স হ্যারি

যে কারণে ফ্রান্সের সঙ্গে বৈঠক করবে জাপান 

বাইডেন ও পুতিনকে নিয়ে ত্রিপক্ষীয় আলোচনার প্রস্তাব দিলো জেলানস্কি

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

রানি কাঁদছিলেন, বরিসরা নাচছিলেন 

বরিসের পদত্যাগ কি আসন্ন

রানির কাছে ক্ষমা চাইলো বরিস সরকার 

বিধিনিষেধ ভেঙে বরিসের কার্যালয়ে আরও মদ-নাচের পার্টি