মঙ্গলবার, ০৯ আগস্ট ২০২২, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

মুক্ত বাতাসে ১৭ বন্যপ্রাণী

আপডেট : ২৭ নভেম্বর ২০২১, ১৭:৪৯

বাগেরহাটের চন্দ্রমহল ইকোপার্ক থেকে উদ্ধার করা কুমির, হরিণ ও বানরসহ বিভিন্ন প্রজাতির ১৭ বন্যপ্রাণী সুন্দরবনে অবমুক্ত করা হয়েছে। 

শনিবার (২৭ নভেম্বর) দুপুরে র‌্যাব ও বন বিভাগের কর্মকর্তারা বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবন বিভাগের চাঁদপাই রেঞ্জের করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রে অবমুক্ত করেন। 

কুমির, হরিণ ও বানরসহ বিভিন্ন প্রজাতির ১৭টি বন্যপ্রাণী সুন্দরবনে অবমুক্তকালে র‌্যাব-৬ এর কোম্পানি কমান্ডার পুলিশ সুপার আল আসাদ মো. মাহফুজুল ইসলাম, খুলনার বিভাগীয় বন্য প্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ কর্মকর্তা নির্মল কুমার পাল, মৎস্য বিশেষজ্ঞ মো. মফিজুর রহমান, করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আজাদ কবীর উপস্থিত ছিলেন। অবমুক্ত করা বন্যপ্রাণীগুলোর মধ্যে রয়েছে ১টি কুমির, ২টি হরিণ, ৩টি বানর, ২টি কচ্ছপ, ৭টি বক ও ২টি মাছমুড়াল পাখি। 

গত ১৫ নভেম্বর বাগেরহাট সদর উপজেলার রণজিতপুরে অবস্থিত চন্দ্রমহল ইকোপার্ক থেকে ১৬ প্রজাতির ৪৩টি বন্য প্রাণী উদ্ধার করে বন্য প্রাণী ও প্রকৃতি সংরক্ষণ বিভাগ এবং র‌্যাব-৬। এর মধ্যে ১৭টি প্রাণী সুন্দরবনের করমজল বন্যপ্রাণী প্রজনন কেন্দ্রে অবমুক্ত হয়েছে। বাকি বন্যপ্রাণীর মধ্যে ১টি হনুমান যশোরের কেশবপুর ও সাফারি পার্কে অবমুক্ত করা হয়েছে। ১টি ময়ূর, ৫টি অস্ট্রেলিয়ান ঘুঘু ও ২টি উট পাখি সাফারি পার্কে অবমুক্ত এবং ১টি তিমির কঙ্কাল, ৬টি হরিণের শিং, ৬টি হরিণের চামড়া, ১টি ভাল্লুকের চামড়া ও ১টি ক্যাঙ্গারুর চামড়া বনবিভাগের বিভাগীয় দপ্তরে সংরক্ষণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছে বন বিভাগ



ইত্তেফাক/এমএএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

মোরেলগঞ্জে আমন বীজ সংকটের আশঙ্কা 

মোংলা বন্দরে পৌঁছেছে ভারতের প্রথম ট্রায়াল জাহাজ 

সুন্দরবন উপকূলে আশ্রয় নিয়েছে দুই শতাধিক ফিশিংবোট

রাশিয়া থেকে রূপপুরের মালামালের দ্বিতীয় চালান মোংলায়

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

মোংলায় ড্রেজারে ডাকাতি, আটক ১

পানির অভাবে বীজতলায় ধানের চারা নষ্ট হচ্ছে

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের পর প্রথম মোংলা বন্দরে রাশিয়ান জাহাজ

চিতলমারীতে বলেশ্বর নদের চরে আখ চাষ