বৃহস্পতিবার, ০৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৬ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

৫ ঘণ্টা পর পোশাক কারখানার আগুন নিয়ন্ত্রণে

আপডেট : ২৮ জানুয়ারি ২০২২, ২১:৫৪

বন্দর উপজেলার মদনপুরে পোশাক কারখানার আগুন  নিয়ন্ত্রণে এসেছে। সোনারগাঁও, বন্দর ও ডেমরাসহ আশপাশের ফায়ার সার্ভিসের ১৩টি ইউনিট ৫ ঘণ্টা চেষ্টার পর আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সের নারায়ণগঞ্জের উপসহকারী পরিচালক আব্দুল্লাহ আল আরেফীন জানান, আগুন দ্রুত ছড়িয়ে পড়ে। আমরা খবর পেয়ে জেলার বিভিন্ন স্টেশনের ১৩টি ইউনিটকে আগুন নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করি। আগুন লাগার কারণ ও ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ জানা সম্ভব হয়নি। আগুনের কারণে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের কয়েক কিলোমিটার এলাকা জুড়ে যানজটের সৃষ্টি হয়। রাত ৯টার পর থেকে যানবাহন চলাচল শুরু হয়।

এর আগে বন্দরের জাহিন নিটওয়্যার্স লিমিটেড নামে রফতানিমুখী পোশাক কারখানায় শুক্রবার বিকাল ৪টায় আগুন লাগে। এতে হতাহতের ঘটনা না ঘটলেও ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

প্রতিষ্ঠানের সুইং বিভাগের শ্রমিক হাবিব জানান, বিকেল পৌনে ৪টার দিকে আগুনের খবর দেয় কারখানার ২নম্বর ইউনিটের নিরাপত্তা কর্মীরা। এ প্রতিষ্ঠানে প্রায় তিন হাজার শ্রমিক কাজ করেন। কিন্তু শুক্রবার হওয়ায় বেশিরভাগ ইউনিট বন্ধ ছিল। তবে প্রতিটি ইউনিটে কিছু শ্রমিক তৈরি পোশাক প্যাকেট করার কাজ করছিলেন। তবে কেউ ভেতরে আটকা পড়েছেন এমন খবর পাওয়া যায়নি। আগুনের ঘটনায় প্রচুর ধোঁয়া তৈরি হয়। ধোঁয়ার কারণে পাশের ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে যান চলাচল কিছুক্ষণ বন্ধ ছিল।

প্রতিষ্ঠানের নির্বাহী পরিচালক শফিউদ্দিন ভূঁইয়া জানান, আগুন লাগার পরপর নিরাপত্তা রক্ষীরা ফায়ার সার্ভিসকে খবর দেয়। ফায়ার সার্ভিস আসতে আসতে আগুন ছড়িয়ে পড়ে। কারখানাটির  ভেতরে গেঞ্জি, পলো শার্ট, জ্যাকেট, ট্রাইজার এসব তৈরি করা হয়। প্রতি তলায় সেসব স্তুপাকারে ছিল। এগুলো পুড়ে যাওয়াতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে।

জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শেখ বিল্লাল হোসেন জানান, কারখানার পরিসর বড় হওয়ায় এবং আগুন চারদিকে ছড়িয়ে পড়ায় নিয়ন্ত্রণে অগ্নিনির্বাপন কর্মীদের বেগ পেতে হয়েছে। তবে কারখানার ভেতরে কোনো শ্রমিক আটকা পড়েনি।

 

 

 

ইত্তেফাক/ইউবি