সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

জাতীয় পরিচয়পত্রে পেশার তালিকায় 'স্থপতি' অন্তর্ভুক্ত হলো

আপডেট : ১২ মে ২০২২, ০৩:৩৬

জাতীয় পরিচয়পত্রে পেশার তালিকায় 'স্থপতি' যুক্ত করা হয়েছে। এর আগে এতে ৪৫টি পেশার তালিকা থাকলেও স্থপতিদের পেশা উল্লেখ না থাকায় এই পেশাজীবীদের 'অন্যান্য' হিসেবে ধরা হতো।

সোমবার (৯ মে) বাংলাদেশ নির্বাচন কমিশনের ওয়েবসাইটের এনআইডি অ্যাপ্লিকেশন সিস্টেমে আবেদনকারীদের পেশার তালিকায় 'স্থপতি' যুক্ত করা হয়।

সরকারি সার্ভারে এই অন্তর্ভুক্তির কারণে জাতীয় পরিচয়পত্র ছাড়াও অন্যান্য সরকারি সেবার ক্ষেত্রেও এখন থেকে পেশা হিসেবে 'স্থপতি' উল্লেখ করার স্বীকৃতি মিলেছে।

ওয়েবসাইটে দেখা যায়, পেশার তালিকায় চিকিৎসক, প্রকৌশলী, শিল্পী থেকে শুরু করে ইমাম বা পুরোহিত, গৃহকর্মী, মিস্ত্রী, প্রহরী, কামার, কুমোর, মালি, জেলে, ধোপা, কসাই সহ বিভিন্ন পেশা উল্লেখ করা ছিল। তবে এই তালিকায় ছিল না স্থপতি। অথচ স্থাপত্য পেশার সৃজনশীল মানুষেরা দেশের উন্নয়নে প্রত্যক্ষ অবদান রাখছেন। আধুনিক সভ্যতা ও নগর ব্যবস্থার বিকাশে স্থপতিরা মুখ্য ভূমিকা পালন করে থাকেন। তাদের নকশায় বাস্তবায়িত হয় নানা পরিকল্পনা, নির্মাণ করা হয় স্থাপনা।

জাতীয় পরিচয়পত্রের আবেদন ও তথ্য হালনাগাদের ওয়েবসাইটে পেশা নির্বাচনের তালিকায় 'স্থপতি' যুক্ত করা হয়েছে

বাংলাদেশ স্থপতি ইন্সটিটিউটের (বাস্থই) পক্ষ থেকে জানানো হয়, বাস্থই-এর বর্তমান (২৪তম) নির্বাহী পরিষদ দায়িত্বগ্রহণের পর থেকেই এ বিষয়ে নির্বাচন কমিশন ও সরকারের সংশ্লিষ্ট মহলের দৃষ্টি আকর্ষণের চেষ্টা করেছে। বিষয়টি বাস্তবায়িত হওয়ায় নির্বাচন কমিশন সচিব মো. হুমায়ুন কবির খোন্দকার, জাতীয় পরিচয় নিবন্ধন অনুবিভাগের মহাপরিচালক একেএম হুমায়ূন কবীর এবং স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের সাবেক সচিব ফরিদউদ্দীন চৌধুরীর প্রতি বাস্থই আন্তরিক ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জ্ঞাপন করছে। সরকারি সার্ভারে এই অন্তর্ভুক্তির কারণে জাতীয় পরিচয়পত্র ছাড়াও অন্যান্য সরকারি সেবার ক্ষেত্রেও এখন থেকে পেশা হিসেবে 'স্থপতি' উল্লেখ করার স্বীকৃতি মিলেছে।

এর আগে অনলাইনে পাসপোর্টের আবেদন করার ক্ষেত্রেও স্থপতিরা পেশার স্থানে 'অন্যান্য' বা 'Others' উল্লেখ করে আবেদন করতেন। গেল বছরের সেপ্টেম্বরে একটি ইংরেজি দৈনিকে অধ্যাপক নিজামুদ্দিন আহমেদের লেখা কলাম 'Architects are not 'others'' প্রকাশ হয়। পরে বাংলাদেশ স্থপতি ইন্সটিটিউটের নেতৃবৃন্দ পাসপোর্ট অধিদপ্তরের উর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেন। এর প্রেক্ষিতে ২০২১ সালের ৩ অক্টোবর বাংলাদেশ পাসপোর্টের (ই-পাসপোর্ট) আবেদন করার ওয়েবপেজে পেশা হিসেবে 'Architect' নির্বাচন করার সুযোগ চালু হয়।

নির্বাচন কমিশন সচিবের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করছেন বাস্থই-এর সাধারণ সম্পাদক

বাংলাদেশ স্থপতি ইন্সটিটিউটের (বাস্থই) সাধারণ সম্পাদক স্থপতি ফারহানা শারমীন ইমু জানান, স্থপতিদের দীর্ঘদিনের চাওয়া অনুযায়ী পাসপোর্ট করার ক্ষেত্রে ও জাতীয় পরিচয়পত্র হালনাগাদে পেশা নির্বাচনের স্থানে 'Architect' সংযোজিত হয়েছে। এতে বাস্থই পরিবার আনন্দিত।

ইত্তেফাক/এসটিএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

‘আইনের কঠোর প্রয়োগে তামাকপণ্য নিয়ন্ত্রণে আনা হবে’

অঞ্চলভিত্তিক উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর

গবেষণা

‘কম ক্ষতিগ্রস্ত মুদ্রার তালিকায় বিশ্বে ২য় স্থানে বাংলাদেশের টাকা’

হাজী সেলিমের জামিন নামঞ্জুর

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

‘কৃষি-খাদ্য সুরক্ষা চর্চাগুলো অন্যান্য দেশের সঙ্গে ভাগ করে নিতে প্রস্তুত বাংলাদেশ’

নির্যাতনের শিকার সেই তরুণীকে ফেরত পাঠালো ভারত

বিশেষ সংবাদ

প্রতিরোধে সচেতনতার পরামর্শ বিশেষজ্ঞদের

বিশেষ সংবাদ

মোটরসাইকেল চালাতে নিরুৎসাহিত করছে বিআরটিএ