শুক্রবার, ১৯ আগস্ট ২০২২, ৪ ভাদ্র ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

গরমে ফ্যাশনে থাকুক আরাম 

আপডেট : ১৮ মে ২০২২, ১৮:২৮

প্রচণ্ড রোদ, ভ্যাপসা গরম আর মাঝেমধ্যে বৃষ্টি, তারপরও গরমের প্রভাব কমে না। এসব কারণে গরমকালটা অনেকেরই অপছন্দ। জৈষ্ঠ্যের গরমে ঘাম, ধুলাবালি, হুটহাট বৃষ্টিতে ফ্যাশন সচেতন তরুণীদের বারোটা বেজে যাওয়ার উপক্রম। বিচ্ছিরি প্যাচপেচে গরমে কিভাবে জমিয়ে আরামে ফ্যাশন করা যায়, জেনে নেওয়া যাক।

গরমে পোশাকের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে করে নিতে পারেন টপ নট, বান, বিনুনি অথবা পনিটেল

  • পোশাকের রং নির্বাচনে হালকা রংটাকে বেছে নিতে হবে। হালকা রং যেমন আরামদায়ক, তেমনই এই রঙগুলোর একটা সামার ভাইবও আছে। কালো, ডার্ক ব্লু বা বেগুনির মতো রঙগুলো সূর্য়ের তাপ বেশি শোষণ করে তাই গরমে এই রঙের পোশাকগুলো এড়িয়ে চলাই ভালো।
  • ভ্যাপসা গরমে ভারি মেকআপ একদমই না। সামারে এটা সবচেয়ে ভয়ঙ্কর ফ্যাশন। মোটা কালো আইলাইনার, ঘন আইশ্যাডো, ফাউন্ডেশন, গাঢ় লিপস্টিক একসাথে ঘেমে একাকার হলে অবস্থাটা কী দাঁড়াবে ভাবলেই মাথা চক্কর দিচ্ছে তো! তাই গরমে বেস্ট হালকা, ন্যাচারাল মেকআপ, নিউট্রাল রঙের আইশ্যাডো, অল্প ময়েশ্চারাইজার আর হালকা গোলাপি লিপবামই যথেষ্ট।
  • গরমে পোশাক নির্বাচনে হালকা সুতির ফ্রেবিক, সিল্ক, শিফন বা লেস থাকলে ভালো। আঁটসাঁট বা টাইট ফিটিং পোশাক এড়িয়ে চলুন। এর পরিবর্তে ঢিলা ও ঘের দেওয়া পোশাক পরতে পারেন। মানে ফ্লো ড্রেস। সেটা আপনি স্কার্ট, শর্টস যা-ই পরেন না কেন।

গরমে পোশাক নির্বাচনে হালকা সুতির ফ্রেবিক, সিল্ক, শিফন বা লেস থাকলে ভালো

  • ফ্যাশনে সচেতন সাহসী তরুণীদের গরমে বেশি পছন্দ অফ সোল্ডার ড্রেস। কনফিডেন্টলি পরতে পারলে, সামার ফ্যাশনে এই পোশাক যে সবার ওপরে তাতে কোনো সন্দেহ নেই। আর যদি অফ সোল্ডার পরতে দ্বিধা বা সংকোচ ভর করে তাহলে কোল্ড সোল্ডার বেছে নিতে পারেন।
  • যাদের লম্বা চুল তাদের গরমে সমস্যাটা একটু বেশি। কারণ, চুল খুলে রাখলে ঘামে-ধুলায় ময়লা হয়ে জট পাঁকিয়ে যায়। কর্মক্ষেত্রে বা কলেজ-বিশ্ববিদ্যালয়ে রিকশা, বাস, সিএনজিতে নিয়মিত যাতায়াতে ঘেমেনেয়ে চুলের বারোটা বেজে যায়। তাই, সহজ সমাধান হলো চুল বেঁধে ফেলা। পোশাকের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে করে নিতে পারেন টপ নট, বান, বিনুনি অথবা পনিটেল। 

গরমে বেস্ট হালকা, ন্যাচারাল মেকআপ, নিউট্রাল রঙের আইশ্যাডো, অল্প ময়েশ্চারাইজার আর হালকা গোলাপি লিপবাম

  • গরমে আরাম পেতে স্ট্রাইপ সার্টের কিছু কালেকশন রাখতে পারেন। সামার ফ্যাশনে এটা আদর্শ পোশাক বলা যায়। শর্টস, স্কার্ট, প্যান্টস, ডেনিম পরতে পার যেকোনো কিছুর সঙ্গেই।
  • সামরে কুল লুক পেতে শুধু পোশাক নয়, প্রয়োজন হ্যান্ডব্যাগেরও। সম্ভব হলে প্রতিটা পোশাকের সাথে মানানসই হ্যান্ডব্যাগ নিতে পারেন। তা না হলে একটা নিউট্রাল বাদামি রঙের হ্যান্ডব্যাগ কিনে নিতে পারেন। গরমে সব পোশাকের সঙ্গেই মানিয়ে যাবে। 
  • স্টাইলিশ একটা রোদ চশমা সামার ফ্যাশনে ভিন্ন লুক এনে দিতে বাধ্য। কারণ, এই গরমে সানগ্লাস খুব প্রয়োজনীয়। সব সময় মুখের গড়নের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে সানগ্লাস কিনুন। 

সামরে গয়নায় যেনো থাকে প্রকৃতির ছোঁয়া

  • স্টাইলিশ তরুণীদের এই সামারে খুব পছন্দ হ্যাট। অনেকে মনে করেন শুধুমাত্র সমুদ্রে বেড়াতে গেলেই হ্যাট পরতে হয়। কিন্তু গরমকালে প্রতিদিনই পরতে পারেন হ্যাট। হ্যাট যেমন আপনাকে সামারে ভিন্ন লুক এনে দিবে তেমনি সূর্যের ক্ষতিকারক রশ্মির হাত থেকেও ত্বককে রক্ষা করবে।
  • প্রকৃতিতে গরমে সবুজের একটা স্নিগ্ধতা থাকে। তাই সামরে গয়নায় যেনো থাকে প্রকৃতির ছোঁয়া। গাঢ় রং বা পাথর বসানো বড়সড় গয়নাগুলো আপাতত তুলে রাখুন। গরমে বেছে নিন নীল, সোনালি, ফিরোজা, গোলাপি, বাদামি, সবুজ রঙয়ের ব্রেসলেট, হার বা দুল। 

 

 

ইত্তেফাক/আরএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন