বুধবার, ১৭ আগস্ট ২০২২, ১ ভাদ্র ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

নজর কাড়ছে ৩৫ মণ ওজনের ‘সুলতান’  

আপডেট : ০২ জুলাই ২০২২, ০৯:১৫

রংপুরের কাউনিয়ায় আসন্ন ঈদুল আজহায় কোরবানির হাট কাঁপাতে ‘প্রস্তুত করা হয়েছে সাদা রঙের ‘সুলতান’। এই সুলতানকে দেখতে উপজেলার হরিচরণলস্কর (চৌকির ঘাট) খামারি নুরুল আমীনের বাড়িতে ভিড় করছেন ক্রেতারা। তারা সুলতানের দাম করছেন ১২ লাখ টাকা।

সাড়ে ৩ বছর আগে জন্ম নেওয়া সুলতানের ষাঁড়টির ওজন প্রায় ৩৫ মণ। লম্বায় প্রায় সাড়ে ৫ ফুট। সাড়ে ৫ ফুট উচ্চতা বিশিষ্ট ষাঁড়রের (সিনার) ঘের প্রায় ৮ ফুট। কাউনিয়ার এটাই সব চেয়ে বড় গরু বলে জানান কাউনিয়া উপজেলা প্রাণিসম্পদের চিকিৎসক মোস্তাফিজুর রহমান।  

ষাঁড়টির মালিক নুরুল আমীন জানান, ‘সুলতান’ নামের ষাড়টি তার গোয়ালে সাড়ে তিন বছর আগে জন্ম নেয়। এর মা (গাভি) আগে আরও তিনটি ষাঁড়ের জন্ম দিয়েছে। সেগুলোও কোরবানির ঈদে বিক্রি করে তিনি বেশ লাভবান হয়েছেন। 

ব্রাহমা শংকর জাতের ষাঁড় ‘সুলতান’র জন্য তিনি দাম চাচ্ছেন ১৪ লাখ টাকা। সম্প্রতি তার বাড়িতে বিভিন্ন ক্রেতাসাধারণ এসে সুলতানের দাম হাকিয়েছেন ১২ লাখ টাকা। কাউনিয়া উপজেলা প্রাণিসম্পদ অফিস থেকে ষাঁড়টির স্বাস্থ্য পরীক্ষা করে গেছেন।

‘সুলতানের’ খাবারের তালিকায় রয়েছে খড়, ভুসি, পেয়ারা, আপেল, মাল্টা, বিচি কলা,  ছোলা, কাঁচা ঘাস ইত্যাদি। তাকে নিয়মিত গোসল করানো হয়। থাকার ঘরে ফ্যান লাগিয়ে দেওয়া হয়েছে। সবমিলিয়ে ‘সুলতানের’ যত্নের কোনো ত্রুটি করেন না নুরুল আমীন।

স্থানীয়রা বলেন, নুরুল আমীন পেশায় একজন কৃষক। পৈত্রিক জমি চাষ করে তার সংসার চলে। পারিবারিকভাবেই তারা গরু লালন-পালন করে থাকেন। তার গোয়ালের ‘সুলতান’ নামের ষাঁড়টি দেখতে স্থানীয় লোকজন ভিড় করছেন। ষাঁড়টি যথোপযুক্ত দাম পেলে এলাকায়ই বিক্রির কথা রয়েছে।

কাউনিয়া উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. শিল্পিকা রহমান বলেন, কাউনিয়া উপজেলায় ‘নুরুল আমীনের সুলতান’ নামের ষাঁড়টিই বড়। দেশীয় খাবারে ষাঁড়টি লালন-পালন করা হয়েছে।

ইত্তেফাক/মাহি