মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

এফবিআই আমার পাসপোর্ট চুরি করেছে: ট্রাম্প

আপডেট : ১৭ আগস্ট ২০২২, ১৩:৫৮

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প দাবি করেছেন, গত ৮ আগস্ট তল্লাশির সময় এফবিআই তার পাসপোর্ট চুরি করেছে। যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় সোমবার তিনি এই দাবি করেন এবং তার পাসপোর্ট ফিরে দেওয়ার আহ্বান জানান।

ট্রাম্প তার সোশ্যাল মিডিয়া ট্রুথ সোশ্যালে বলেন, ‘আমার মার-এ-লাগোর বাসভবনে অভিযান চালানোর সময় এফবিআই সবকিছু নিয়ে গেছে। এর মধ্যে আমার তিনটি পাসপোর্ট তারা চুরি করেছে। একটির মেয়াদ শেষ হয়ে গেছে। ট্রাম্প বলেন, এই অভিযানের মাধ্যমে একজন বিরোধী রাজনীতিকের ওপর রাজনৈতিক আক্রমণ করা হয়েছে। আমেরিকায় এই ধরনের ঘটনা কখনো ঘটেনি। এটা কী তৃতীয় বিশ্ব!’ ট্রাম্প তার বার্তায় কোনো ধরনের পাসপোর্ট চুরি হয়েছে সেই বিষয়ে উল্লেখ করেননি। যুক্তরাষ্ট্রে বেসামরিক নাগরিকদের প্রতিদিনই ব্লু পাসপোর্ট ইস্যু করা হয়। আর রেড পাসপোর্ট কূটনৈতিক বা সরকারি কর্মকর্তাদের ভ্রমণের জন্য ইস্যু করা হয়।

ট্রাম্প অভিযোগ করেন, ‘এফবিআই আমার নিরাপত্তায় শঙ্কা তৈরি করেছে’। তিনি আরো অভিযোগ করেন, বিচার বিভাগকে তার বিরুদ্ধে অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করছে সরকার। তিনি বলেন, ডেমোক্র্যাটদের মধ্যে কিছু কট্টর বামপম্হি আছেন তারা চান না যে আমি ২০২৪ সালের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে লড়াই করি। আর সামনের মধ্যবর্তী নির্বাচনের আগে রিপাবলিকান এবং রক্ষণশীলদের থামিয়ে দিতে নানা পদক্ষেপ নিচ্ছে সরকার। তিনি তার বাসা থেকে নিয়ে যাওয়া সব বাক্স ফেরত চেয়েছেন।

এফিডেভিট প্রকাশ করবে না বিচার বিভাগ

ট্রাম্পের বাসায় এফবিআইয়ের তল্লাশির বৈধতা দিতে যে এফিডেভিটের কথা বলা হয়েছিল সেটি প্রকাশ করবে না বিচার বিভাগ। একজন ফেডারেল বিচারক তল্লাশির অনুমতি দিয়েছিলেন বলে জানানো হয়েছিল। রিপাবলিকানরা বারবার সেই এফিডেভিট প্রকাশের দাবি জানিয়ে আসছে। সোমবার বিচার বিভাগ সেই দাবি প্রত্যাখ্যান করে জানিয়েছে, তারা এই নথি প্রকাশ করবেন না। বিচার বিভাগের প্রসিকিউটররা মনে করছেন, এই এফিডেভিট প্রকাশ করা হলে তা সরকারের তদন্ত বাধাগ্রস্ত হবে। এটা প্রকাশ করার অর্থ ভবিষ্যৎ তদন্তের ক্ষেত্রে প্রতিপক্ষের সঙ্গে আপস করা।

ইত্তেফাক/এএইচপি