রোববার, ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

উখিয়ায় মাদকসহ ৩ মাদককারবারি গ্রেফতার   

আপডেট : ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৪:১৪

কক্সবাজারের উখিয়ায় অভিযান চালিয়ে ২ লাখ ৩৮ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেটসহ ৩ জনকে গ্রেফতার করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটেলিয়ন-৭। রোববার (২৫ সেপ্টেম্বর) বিকালে উখিয়ার পালংখালীর বালুখালী ছড়া ব্রিজ সংলগ্ন কক্সবাজার-টেকনাফ মহাসড়কের ওপর অভিযান চালিয়ে ইয়াবার বিশাল চালানসহ 'ইয়াবা সম্রাট' বলে পরিচিত আলমগীর ও তার ২ সহযোগীকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব-৭'র সিনিয়র সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. নুরুল আবছার।

গ্রেফতারকৃতরা হলো, কক্সবাজারের উখিয়ার জালিয়াপালং এলাকার মৃত ফরিদ আলমের ছেলে আলমগীর (৩০), পালংখালীর আঞ্জুমান পাড়ার আলী মিয়ার ছেলে নজরুল মিয়া (২৬) ও পশ্চিম পালংখালীর আবদুল গফুরের ছেলে মুক্তার আহমেদ (৪২)।  

র‌্যাব-৭'র পরিচালক মিডিয়া বলেন, গোপন সূত্রে খবর আসে মাদক কারবারি কক্সবাজারের উখিয়ার বালুখালী ছড়া ব্রিজের পাশে কক্সবাজার-টেকনাফ মহাসড়কের পাকা রাস্তার ওপর মাদকদ্রব্য হস্তান্তরের জন্য অবস্থান করছে। এ তথ্যের ভিত্তিতে রোববার বিকেলে র‌্যাব-৭, চট্টগ্রামের একটি দল অভিযানে যায়। এতে ৩টি বস্তাসহ ৩ জনকে আটক করা হয়। উপস্থিত লোকজনের সামনে গ্রেফতারকৃতরা ৩ টি বস্তার ভেতর প্লাস্টিক, রাবার ও পেপার দ্বারা মোড়ানো অবস্থায় বের করে দেওয়া ইয়াবাগুলো গণনা করে ২ লাখ ৩৮ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট মিলেছে। 

তিনি আরও জানান, গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানায়, আলমগীরের সঙ্গে মিয়ানমারের ইয়াবা ব্যবসায়ীদের সংযোগ রয়েছে। ইয়াবা ব্যবসায় দেশে পুঁজি বিনিয়োগ করতে তার একটি সিন্ডিকেট তৈরি হয়েছে। ঐ সিন্ডিকেট সদস্যদের মাধ্যমে উখিয়ার পালংখালীর বালুখালী এলাকার কিছু রাস্তা ব্যবহার করে ইয়াবার বড় চালান এনে তার সহযোগীদের বসতবাড়ির মাটিতে গর্ত করে পুঁতে রাখেন। পরে তা ছোট ছোট চালান আকারে সরবরাহ করেন। সরবরাহ কাজে নজরুল মিয়া ও মুক্তারসহ সিন্ডিকেটের অন্য সদস্যরা সহযোগিতা করে থাকে। 

গ্রেফতারকৃতদের উখিয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

ইত্তেফাক/এআই