রোববার, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

‘এ ধরণের চলচ্চিত্র উৎসব দারুণ গুরুত্ব বহন করে’

আপডেট : ৩০ অক্টোবর ২০২২, ১১:৫৯

কলকাতায় শুরু হলো চতুর্থ বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উৎসব। গত শনিবার (২৯ অক্টোবর) থেকে শুরু হতে যাওয়া এ উত্সব চলবে ২ নভেম্বর পর্যন্ত। এবার বাংলাদেশের ৩৭ সিনেমা নিয়ে এ চলচ্চিত্র উৎসব হবে। ২৬ অক্টোবর কলকাতা প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানানো হয়।

শনিবার (২৯ অক্টোবর) থেকে কলকাতার ঐতিহ্যবাহী নন্দনের তিন প্রেক্ষাগৃহে চলচ্চিত্রগুলো প্রদর্শিত হবে বলে জানা গেছে।

কলকাতার রবীন্দ্র সদনে শনিবার বিকেল ৪টায় উৎসবের উদ্বোধন করবেন তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী হাছান মাহমুদ। অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পশ্চিমবঙ্গের তথ্যপ্রযুক্তি ও পর্যটন দপ্তরের ভারপ্রাপ্ত মন্ত্রী এবং বলিউড তারকা বাবুল সুপ্রিয়, বাংলাদেশের তারকা জয়া আহসান, মোশাররফ করিম ও চঞ্চল চৌধুরী।

বাংলাদেশ সরকারের উদ্যোগে ও কলকাতার বাংলাদেশ উপ-হাইকমিশনের ব্যবস্থাপনায় এ উৎসবে পূর্ণদৈর্ঘ্য,স্বল্পদৈর্ঘ্য ও প্রামাণ্যচিত্রসহ মোট ৩৭টি সিনেমা প্রদর্শিত হবে।

এরমধ্যে রয়েছে ‘গুণিন’, ‘হূদিতা’, ‘বিউটি সার্কাস’, ‘হাওয়া’, ‘পরাণ’, ‘পায়ের তলায় মাটি নাই’, ‘পাপ পুণ্য’, ‘কালবেলা’, ‘চন্দ্রাবতী কথা’, ‘চিরঞ্জীব মুজিব’, ‘রেহানা মরিয়ম নূর’, ‘নোনাজলের কাব্য’, ‘রাতজাগা ফুল’, ‘লাল মোরগের ঝুঁটি’, ‘গোর’, ‘গলুই’, ‘গন্ডি’, ‘বিশ্বসুন্দরী’, ‘রূপসা নদীর বাঁকে’, ‘শাটল  ট্রেন’, ‘মনের মতো মানুষ পাইলাম না’, ‘ন-ডরাই’, ‘কমলা রকেট’, ‘গহীন বালুচর’ ও ‘ঊনপঞ্চাশ বাতাস’।

উৎসবে আরও দেখানো হবে ৪টি প্রামাণ্যচিত্র ‘হাসিনা আ ডটারস টেল’, ‘বধ্যভূমিতে একদিন’, ‘একটি দেশের জন্য গান’ ও ‘মধুমতী পারের মানুষটি শেখ মুজিবুর রহমান’।

উত্সব প্রসঙ্গে জয়া আহসান বলেন, ‘দুই বাংলায় আমাদের ভাষা এক, কালচার খুবই কাছাকাছি, দুই বাংলার দর্শকেরাও এখন একে অপরের কাজ দেখার সুযোগ পাচ্ছি। তাই আমি মনে করি, এ ধরণের চলচ্চিত্র উত্সব আমাদের জন্য দারুণ গুরুত্ব বহন করে। ভাল লাগছে অংশ নিতে পেরে।’

ইত্তেফাক/বিএএফ