শনিবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২৩, ১৪ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

বিএনপি ক্ষমতায় আসা মানে অত্যাচার নির্যাতন: প্রধানমন্ত্রী

আপডেট : ২৬ নভেম্বর ২০২২, ২০:০০

প্রধানামন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘বিএনপি ক্ষমতায় আসা মানে অত্যাচার নির্যাতন। বিএনপি ও জামায়াত ২০০১ সালে ক্ষমতায় এসে মানুষের ওপর নির্যাতন শুরু করে।’ শনিবার (২৬ নভেম্বর) বিকেলে আওয়ামী লীগের অন্যতম সহযোগী সংগঠন মহিলা আওয়ামী লীগের ষষ্ঠ জাতীয় সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি। 

এর আগে সকাল থেকেই দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে খণ্ড খণ্ড মিছিল নিয়ে নেতা-কর্মীরা সম্মেলনস্থলে সমবেত হন। নারী নেত্রীদের ব্যানার, প্ল্যাকার্ড ও ফেস্টুনে ছেয়ে গেছে সোহরাওয়ার্দী উদ্যান ও আশপাশের এলাকা।

সমাবেশে প্রধানামন্ত্রী শেখ হাসিনা। ছবি: ফোকাস বাংলা

বিএনপির সঙ্গে সংলাপের সম্ভাবনা প্রকারান্তরে নাকচ করে দিয়ে সরকারপ্রধান বলেন, অনেকে বলেন ডায়ালগ করতে হবে। আলোচনা করতে হবে। কাদের সঙ্গে? ওই বিএনপি, খালেদা জিয়া-তারেক জিয়া? সাজাপ্রাপ্ত আসামি। যারা গ্রেনেড হামলা করে আমাকে হত্যার চেষ্টা করেছে। এখন ওই দুর্নীতিবাজ-সাজাপ্রাপ্ত, এতিমের অর্থ আত্মসাতিকারী, আর অর্থ ও অস্ত্র পাচারকারী, গ্রেনেড হামলাকারী, আইভি রহমানের হত্যাকারী। আর জিয়াউর রহমান ছিল আমার বাবার হত্যাকারী। আর এদের সঙ্গে ডায়ালগ করতে হবে! আলোচনা করতে হবে! আবার মানবাধিকারের কথাও বলেন। এটা কেমন ধরনের কথা- জিজ্ঞাসা করি।

ছবি: ফোকাস বাংলা

তিনি বলেন, খালেদা জিয়া বক্তৃতা দিয়েছিল-শেখ হাসিনা প্রধানমন্ত্রী তো দূরের কথা বিরোধী দলীয় নেতাও কখনও হবে না। আওয়ামী  লীগ একশ বছরেও ক্ষমতায় যাবে না। আল্লাহ এ ধরনের গর্ভভরা কথা পছন্দ করেন না। আর বাংলাদেশের মানুষ তো একেবারেই পছন্দ করে না। এজন্য খালেদা জিয়ার মুখের কথা তার বেলায়ই লেগে গেছে।

বক্তব্য রাখছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ছবি: ফোকাস বাংলা

প্রধানমন্ত্রী বলেন, এখন বিশ্বব্যাপী খাদ্যমন্দা দেখা গেছে। অনেক দেশে দুর্ভীক্ষ দেখা দিয়েছে। আমাদের দেশে এটা যেন না হয়। প্রত্যেকে যে যা পারেন উৎপাদন করেন। এটা আমাদের জন্য কল্যাণকর হবে। 

ইত্তেফাক/এএএম