শনিবার, ০৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২১ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি জামি, সম্পাদক বাহারুল

আপডেট : ২১ জানুয়ারি ২০২৩, ২০:৩২

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের  কার্যনির্বাহী পরিষদের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনে সভাপতি রিয়াজ উদ্দিন জামি ও সাধারণ সম্পাদক মো. বাহারুল ইসলাম মোল্লা নির্বাচিত হয়েছেন।

শনিবার (২১ জানুয়ারি) সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা অধিবেশন চলে। এরপর দুপুর ২টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাব মিলনায়তনে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।  

এর আগে সভাপতিসহ ৩ জন বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। ফলে আজ নির্বাচনে ৮জনকে নির্বাচিত করা হয়েছে। নির্বাচনে জয়ী প্রার্থীরা হলেন সাধারণ সম্পাদক দৈনিক যায়যায়দিন পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার মো. বাহারুল ইসলাম মোল্লা তিনি ভোট পেয়েছেন ১৯, তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ভোট পেয়েছেন বর্তমান সাধারণ সম্পাদক ১৮, সিনিয়র সহ-সভাপতি ফিন্যান্সিয়াল এক্সপ্রেস পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি মো. জসিম উদ্দিন. তিনি ভোট পেয়েছেন বর্তমান সিনিয়র সহ-সভাপতি পীযূষ কান্তি আচার্য। 

সহ-সভাপতি পদে দৈনিক দিনকাল পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি নিয়াজ মোহাম্মদ খান বিটু, তিনি পেয়েছেন ২০ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বর্তমান সহসভাপতি ইব্রাহিম খান সাদাত পেয়েছেন ১৭ ভোট। যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক এনটিভির স্টাফ রিপোর্টার শিহাব উদ্দিন বিপু, তিনি পেয়েছেন ২১ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী সৈয়দ রিয়াজ আহমেদ অপু। তিনি ভোট পেয়েছেন ১৬। 

কোষাধ্যক্ষ বাংলাদেশ প্রতিদিন পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি মোশাররফ হোসেন বেলাল, তিনি পেয়েছেন ২৫ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী মজিবুর রহমান পেয়েছেন ১২ ভোট। সংস্কৃতি ও তথ্য প্রযুক্তি সম্পাদক আজকালের খবর পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি মোজাম্মেল চৌধুরী, তিনি ভোট পেয়েছেন ২৩। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী নজরুল ইসলাম শাহজাদা। কার্যকরী সদস্য পদ ২টি, প্রার্থী তিনজন। আমাদের অর্থনীতি পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি ফরহাদুল ইসলাম পারভেজ, তিনি পেয়েছেন ৩৪, একুশে টেলিভিশনের জেলা প্রতিনিধি মীর মো. শাহীন তিনি পেয়েছেন ২৩ ও মনির হোসেন পেয়েছেন ১২ ভোট।

৩টি পদে বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় বিজয়ীরা হলেন সভাপতি দৈনিক জনকণ্ঠ ও চ্যানেল২৪ এর স্টাফ রিপোর্টার রিয়াজ উদ্দিন জামি, দপ্তর সম্পাদক দৈনিক করতোয়া পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি শাহজাহান সাজু, পাঠাগার ও ক্রীড়া সম্পাদক দৈনিক শেয়ারবিজ পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি এইচ এম সিরাজ।

ইত্তেফাক/এএইচপি