শুক্রবার, ০৩ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

শাহরুখের ‘পাঠান’ নিয়ে মোদির মন্তব্য, মুখ খুললেন অক্ষয়

আপডেট : ২৩ জানুয়ারি ২০২৩, ১৫:৩২

বহু আগে থেকেই প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ঘনিষ্ঠ বলেই পরিচিত বলিউড সুপারস্টার অক্ষয় কুমার। ফের একবার প্রকাশ্যেই প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ তিনি। সম্প্রতি নরেন্দ্র মোদির মন্তব্য নিয়েই এবার প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসা করতে শোনা অক্ষয়ের মুখে।

সম্প্রতি সিনেমা ও তারকাদের নিয়ে ‘অপ্রয়োজনী’ মন্তব্য করা থেকে বিজেপি নেতাদের বিরত থাকার দাওয়াই দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। নয়াদিল্লিতে বিজেপির জাতীয় কার্যনির্বাহী বৈঠকের সময় মোদী বলেন, ‘কেউ অপ্রয়োজনীয় মন্তব্য করবেন না যাতে আমাদের কঠোর পরিশ্রম ম্লান হয়ে যায়’।

প্রধানমন্ত্রীর এই মন্তব্য প্রসঙ্গেই অভিনেতা অক্ষয় কুমার বলেন, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির এই মন্তব্য আদপে চলচ্চিত্র শিল্পের জন্যই ইতিবাচক। এমন বিষয়কে আমি সর্বদা স্বাগত জানাই। আমাদের প্রধানমন্ত্রী দেশের সবচেয়ে বড় প্রভাবশালী। তিনি এমন কিছু বলেছেন যাতে সিনেমা শিল্পের ভবিষ্যতের জন্য ভালো।’

ফাইল ছবি

অক্ষয়ের কথায়, ‘কিছু জিনিসের পরিবর্তন হওয়া উচিত, কারণ আমরা অনেক কিছুর মধ্য দিয়ে যাই, তারপর একটা সিনেমা তৈরি হয়। সেন্সর বোর্ডে যাই, সেটা পাস করাই এবং তারপর সেটা নিয়ে যদি কেউ কিছু বলে তাহলে সব গণ্ডোগোল হয়ে যায়। তবে প্রধানমন্ত্রী যেহেতু একথা বলেছেন, সেটা আদপে আমাদের জন্যই ভালো।’

সম্প্রতি সোশ্যাল মিডিয়ায় শাহরুখের ‘পাঠান’ বয়কটের ডাক ওঠে। ছবিটি মুক্তি পেলে আগুল জ্বলে যাবে, এমন মন্তব্য করেন উগ্র হিন্দুত্ববাদীরা। মধ্যপ্রদেশের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী নরোত্তম মিশ্র এবং ভোপাল সাংসদ প্রজ্ঞা ঠাকুর-সহ কয়েকজন বিজেপি নেতা শাহরুখ খান আর দীপিকা পাড়ুকোনের ‘পাঠান’ নিয়ে এধরনের মন্তব্য করেছিলেন। সিনেমার গান ‘বেশরম রং’ নিয়ে আপত্তি তুলেছিলেন একটা অংশ। বিশেষ করে নায়িকার পরে থাকা গেরুয়া বিকিনি নিয়ে আপত্তি উঠেছিল।

ছবি: সংগৃহীত

দাবি তোলা হয়েছিল, হিন্দুদের পবিত্র রং গেরুয়া, আর সেই রঙের বিকিনি পরা ‘বেশরম রং’ গানে আসলে হিন্দু ধর্মের অবমাননা। তাদের পক্ষ থকে যেমন সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি বয়কটের ডাক ওঠে, তেমনই নির্মাতাদের কাছেও নির্দেশ যায় যাতে দীপিকার গেরুয়া বিকিনি পরা দৃশ্য ছবিতে রাখা না হয়। তবে সম্প্রতি সিনেমা নিয়ে অহেতুক মন্তব্য থেকে বিরত থাকার আহ্বানে প্রধানমন্ত্রীর প্রশংসায় পঞ্চমুখ বলিউডের অনেকেই।

ভারতীয় চলচ্চিত্র ও টেলিভিশন পরিচালক সমিতির সভাপতি চলচ্চিত্র নির্মাতা অশোক পণ্ডিত জানান, মোদির এই বক্তব্য ‘আত্মবিশ্বাস কয়েক গুণ বাড়িয়ে দিয়েছে’।

এফডব্লিউআইসিই (ফেডারেশন অফ ওয়েস্টার্ন ইন্ডিয়া সিনে এমপ্লয়িজ) সভাপতি বি এন তিওয়ারি নরেন্দ্র মোদির মন্তব্যকে হিন্দি চলচ্চিত্র শিল্পের জন্য একটি ‘প্রশংসাপত্র’ হিসাবে বিবেচনা করছেন। সূত্র: হিন্দুস্থান টাইমস।

ইত্তেফাক/বিএএফ