বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

শ্রদ্ধা ভালোবাসায় বঙ্গবন্ধুকে স্মরণ

আপডেট : ১৬ আগস্ট ২০২৩, ০০:৫১

১৫ আগস্ট জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৮তম শাহাদতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালিত হয়েছে। এ উপলক্ষে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন, মিলাদ, দোয়া, খাবার বিতরণসহ নানা কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। আমাদের প্রতিনিধি ও সংবাদদাতাদের পাঠানো খবর।

রংপুর: সকালে জেলা প্রশাসনের উদ্যোগে নগরীর বঙ্গবন্ধু ম্যুরালে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করেন বিভাগীয় কমিশনার হাবিবুর রহমান, রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি আব্দুল বাতেন, মেট্রোপলিটন পুলিশ কমিশনার মো. মনিরুজ্জামান, জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মোবাশ্বের হাসান প্রমুখ। পরে রংপুর শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে বঙ্গবন্ধুর জীবনী ও ১৫ আগস্টের প্রেক্ষাপট নিয়ে আলোচনাসভা ও বিভিন্ন প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

খুলনা :সকাল ৮টায় খুলনা জেলা প্রশাসকের কার্যালয় প্রাঙ্গণে স্থাপিত জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পণের মাধ্যমে ১৫ আগস্ট শাহাদতবরণকারী জাতির পিতা ও তার পরিবারের শহিদ সদস্যদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়। খুলনা জেলা ও মহানগর মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড, শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান, খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক, বিভাগীয় কমিশনার মো. হেলাল মাহমুদ শরীফ, কেএমপির পুলিশ কমিশনার মো. মোজাম্মেল হক, রেঞ্জ ডিআইজি মঈনুল হক, জেলা প্রশাসক খন্দকার ইয়াসির আরেফীন প্রমুখ এ সময় পুষ্পমাল্য অর্পণ করেন। পরে জেলা শিল্পকলা একাডেমি অডিটোরিয়ামে খুলনা জেলা প্রশাসন আয়োজিত আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। 

ভাণ্ডারিয়া (পিরোজপুর): ভাণ্ডারিয়ায় উপজেলা প্রশাসন, বীর মুক্তিযোদ্ধা, আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি- জেপি, বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান এবং সামাজিক সংগঠন আনোয়ার হোসেন মঞ্জু গ্যালারির উদ্যোগে যথাযোগ্য মর্যাদায় পৃথক কর্মসূচির মধ্য দিয়ে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর ৪৮তম শাহাদতবার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস পালন করা হয়।  কর্মসূচির মধ্যে ছিল সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতকরণ, সকালে স্থানীয় ওভারব্রিজ সংলগ্ন বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ, কালো ব্যাচ ধারণ, আলোচনাসভা, যুব ঋণের চেক, সনদপত্র ও বৃক্ষের চারা বিতরণ, দুপুরে বঙ্গবন্ধুর ওপর প্রামাণ্য চলচ্চিত্র প্রদর্শন এবং ’৭৫-এর ১৫ আগস্ট শাহাদতবরণকারী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবসহ পরিবারের সদস্যদের বিদেহী আত্মার শান্তি ও মাগফেরাত কামনায় দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। এছাড়া ‘বঙ্গবন্ধুকে জানো—কুইজ প্রতিযোগিতা, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান—চিত্রাঙ্কন ও বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী এবং সোনার বাংলা’ বিষয় রচনা প্রতিযোগিতাসহ স্ব স্ব বিষয়ে বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করা হয়। উপজেলা প্রশাসনের কর্মসূচিতে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ইয়াছিন আরাফাত রানা। দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন উপজেলা ইসলামী ফাউন্ডেশনের ইমাম মাওলানা মোহাম্মদ হাফিজুল ইসলাম। এদিকে জাতীয় পার্টি-জেপি ও তার অঙ্গসংগঠনের উদ্যোগে উপজেলা প্রশাসনের সঙ্গে সমন্বয় রেখে সকালে স্থানীয় ওভারব্রিজ সংলগ্ন বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়। পরে রিজার্ভ পুকুর পাড় জেপির উপজেলা দলীয় কার্যালয়ে আলোচনাসভা, মিলাদ মাহফিল ও দোয়া মোনাজাত  শেষে কাঙ্গালিভোজ করানো হয়। আলোচনাসভায় জাতীয় পার্টি-জেপির উপজেলা সিনিয়র সহসভাপতি মো. গোলাম সরোয়ার জোমাদ্দারের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জেপির উপজেলা সাধারণ সম্পাদক এবং সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আতিকুল ইসলাম উজ্জল তালুকদার, জাতীয় পার্টি-জেপির মহিলা পার্টির উপজেলা সভানেত্রী এবং উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান আসমা আখতার, জেপির উপজেলা সাংগঠনিক সম্পাদক শফিকুল আলম খোকন সিকদার, জাতীয় পার্টি-জেপি নেতা মো. রেজা আহম্মেদ দুলাল, মো. জামাল উদ্দিন লিটন, জেপি নেতা ও সাবেক সেনা সদস্য মো. আব্দুর রব, স্বেচ্ছাসেবক পার্টির উপজেলা সভাপতি মো. মনির সরদার, উপজেলা যুব সংহতির মো. মাহাবুব তালুকদার, ছাত্রসমাজের মো. মাহাবুব শরীফ শুভ প্রমুখ। পরে ’৭৫-এর ১৫ আগস্ট শাহাদত বরণকারী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবসহ পরিবারের সদস্যদের বিদেহী আত্মার শান্তি ও রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা কামরুজ্জামান।

অন্যদিকে উপজেলা আওয়ামী লীগ ও তার অঙ্গসংগঠনের উদ্যোগে দিবসটি পালন উপলক্ষে ভাণ্ডারিয়া পৌর শেখ কামাল অডিটরিয়ামে আলোচনাসভা, দোয়া মোনাজাত এবং গণভোজের আয়োজন করা হয়। আলোচনাসভায় সভাপতিত্ব করেন উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. ফাইজুর রশিদ খশরু জোমাদ্দার। দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা রফিকুল ইসলাম। এছাড়া আনোয়ার হোসেন মঞ্জু এমপির প্রতিষ্ঠিত মজিদা বেগম মহিলা বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের উদ্যোগে উপজেলা প্রশাসনের কর্মসূচিতে অংশগ্রহণের পর দুপুরে পৃথকভাবে কলেজের সুলতানা হোসেন কক্ষে আলোচনাসভা, মিলাদ মাহফিল ও দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনাসভায় সভাপতিত্ব করেন কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মো. এনায়েত করিম খোকন। দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন কলেজের প্রভাষক মো. আমিন খান। পৃথকভাবে মজিদা বেগম বালিকা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের উদ্যোগে উপজেলা প্রশাসনের কর্মসূচিতে অংশগ্রহণের পর পৃথকভাবে বিদ্যালয় মিলনায়তনে অনুরূপ কর্মসূচি পালন করা হয়। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন জাতীয় পার্টি-জেপির উপজেলা সিনিয়র সহসভাপতি এবং সাবেক সদর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ও বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির অন্যতম সদস্য মো. গোলাম সরোয়ার জোমাদ্দার। সভাপতিত্ব করেন বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মো. মনির হোসেন হাওলাদার। দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন মাওলানা ইউনুস আলী। বেসরকারি সামাজিক সংগঠন আনোয়ার হোসেন মঞ্জু গ্যালারির উদ্যোগে মোল্লা ছোমের উদ্দিন জামে মসজিদে বাদ জোহর ’৭৫-এর ১৫ আগস্ট শাহাদতবরণকারী জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান, বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন নেছা মুজিবসহ পরিবারের সদস্যদের বিদেহী আত্মার শান্তি ও রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন কারি মো. নুর মোহাম্মদ।

ইন্দুরকানী (পিরোজপুর): ইন্দুরকানীতে সকালে উপজেলা জেপি কার্যালয়ে জাতীয় পার্টি-জেপি ও তার অঙ্গসংগঠনের আয়োজনে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনাসভা ও দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনায় বক্তব্য রাখেন ইন্দুরকানী উপজেলা জেপির আহ্বায়ক ও পত্তাশী ইউপির চেয়ারম্যান মো. শাহীন হাওলাদার, যুগ্ম আহ্বায়ক ও চণ্ডীপুর ইউপি চেয়ারম্যান মশিউর রহমান মঞ্জু, সদস্য সচিব ও ইন্দুরকানী ইউপি চেয়ারম্যান মাসুদ করিম তালুকদার ইমন প্রমুখ। দোয়া মোনাজাত পরিচালনা করেন পত্তাশী ইউনিয়ন জেপির সভাপতি এনামুল কবির। পরে তারা উপজেলা চত্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন।

কাউখালী (পিরোজপুর) : সকালে উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গণে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পৃথক পৃথকভাবে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে উপজেলা পরিষদ, উপজেলা প্রশাসন, উপজেলা আওয়ামী লীগ, জাতীয় পার্টি-জেপি, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ, যুবলীগ, ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন সরকারি বেসরকারি  এবং সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন। পরে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত আলোচনাসভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মেহের নিগার সুলতানা সভাপতিত্ব করেন। এদিকে দুপুরে কাউখালী উপজেলা জাতীয় পার্টি-জেপির উদ্যোগে নানা কর্মসূচির আয়োজন করা হয়। দলীয় কার্যালয়ে উপজেলা জেপির সভাপতি ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান আবু সাঈদ মিঞার সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন জেপির সাধারণ সম্পাদক মনজুরুল মাহাফুজ পায়েল, সহসভাপতি নুরুল আমিন, সাংগঠনিক সম্পাদক জিয়াউল হাসান জুয়েল, জেপি নেতা রাজু আহম্মেদ, মলিন বরন ঢালী, নেপাল চন্দ্র দে, মহিলা পার্টির সভানেত্রী অধ্যক্ষ আফরোজা সনু, জাতীয় যুবসংহতির সভাপতি নুরুজ্জামান মনু প্রমুখ।

ভাঙ্গা (ফরিদপুর) :ফরিদপুর-৪ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী নিক্সন বলেছেন, স্বাধীন বাংলাদেশের স্থপতি জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের সদস্যদেরকে ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বিপথগামী কিছু সেনাসদস্য নির্মমভাবে হত্যা করে। সেদিন ভাগ্যক্রমে বেঁচে যান বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার ছোট বোন শেখ রেহানা। সেদিনের সেই শোককে শক্তিতে পরিণত করে ফের শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় আনতে হবে। দুপুরে ভাঙ্গা পৌরসভার কার্যালয়ে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। এর আগে শোক শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শাহাদাত হোসেন, উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এসএম হাবিবুর রহমান, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জিয়ারুল ইসলাম প্রমুখ।

চরভদ্রাসন (ফরিদপুর) :সকাল সাড়ে ১০টায় ফরিদপুরের চরভদ্রাসনে কয়েক হাজার নেতাকর্মী নিয়ে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে শ্রদ্ধা জানান ফরিদপুর-৪ আসনের সংসদ সদস্য ও আওয়ামী যুবলীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী নিক্সন। এর আগে শোক শোভাযাত্রা উপজেলা পরিষদ চত্বর থেকে শুরু হয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয় হয়ে সদর বাজার প্রদক্ষিণ করে।

বাকেরগঞ্জ (বরিশাল) : বাকেরগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও পৌর মেয়র লোকমান হোসেন ডাকুয়ার নেতৃত্বে দিনব্যাপী শোক দিবসের নানা আয়োজনের মধ্যে উল্লেখযোগ্য ছিল বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ, শোক রেলি, আলোচনাসভা, কুরআন খতম, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিভিন্ন প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ, মিলাদ ও দোয়া মোনাজাত এবং তবারক বিতরণ।

চাঁদপুর : চাঁদপুরে বঙ্গবন্ধুর ম্যুরালে পুষ্পস্তবক অর্পণের মাধ্যমে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন চাঁদপুর-৩ আসনের এমপি ও শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি। চাঁদপুর সরকারি কলেজ ক্যাম্পাসে শিক্ষামন্ত্রীসহ পুষ্পস্তবক অর্পণ করেন জেলা প্রশাসনের পক্ষে কামরুল হাসান ও জেলা পুলিশের পক্ষে (এসপি) মোহাম্মদ সাইফুল ইসলাম। পরে কলেজ ক্যাম্পাস থেকে শিক্ষামন্ত্রীর নেতৃত্বে শোকরেলি বের করা হয়। এরপর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর জীবন ও কীর্তির ওপর আলোচনাসভা অনুষ্ঠিত হয়। এদিকে দুপুরে চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের আয়োজনে জেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে শোক দিবসের কর্মসূচির অংশ হিসেবে উন্নতমানের খাবার ও প্রতিবন্ধীদের মধ্যে হুইলচেয়ার বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী।

এছাড়া পঞ্চগড়, সুনামগঞ্জ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, মৌলভীবাজার, মাদারীপুর, মাগুরা, চাঁদপুর, মেহেরপুর, চুয়াডাঙ্গা ও জামালপুর জেলা এবং গোপালগঞ্জের কোটালীপাড়া, দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ, জামালপুরের ইসলামপুর ও দেওয়ানগঞ্জ, ময়মনসিংহের ত্রিশাল, নওগাঁর নিয়ামতপুর, টাঙ্গাইলের মির্জাপুর ও নাগরপুর, কিশোরগঞ্জের নিকলী ও হোসেনপুর, নোয়াখালীর হাতিয়া, কুড়িগ্রামের ভূরুঙ্গামারী, বগুড়ার সারিয়াকান্দি, ঠাকুরগাঁওয়ের পীরগঞ্জ, নীলফামারীর ডোমার ও কিশোরগঞ্জ, ভোলার মনপুরা, বাগেরহাটের মোংলা, চট্টগ্রামের আনোয়ারা ও চন্দনাইশ, খাগড়াছড়ির মহালছড়ি, জয়পুরহাটের কালাই, পাবনার চাটমোহর, কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ী, রাজারহাট ও নাগেশ্বরী, সাতক্ষীরার তালা, কুষ্টিয়ার ভেড়ামারা ও দৌলতপুর, ঝিনাইদহের মহেশপুর এবং শেরপুরের শ্রীবরদী উপজেলাসহ সারা দেশেই যথাযোগ্য মর্যাদায় দিবসটি পালিত হয়েছে।

ইত্তেফাক/এমএএম