রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

ইমামকে গুলি করে হত্যা: নিউইয়র্কে মসজিদগুলোতে বাড়তি নিরাপত্তা 

আপডেট : ১২ জানুয়ারি ২০২৪, ১৫:৫৯

যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সির নিয়ার্ক সিটিতে মসজিদের দরজার সামনে এক ইমামকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় নিউইয়র্ক সিটির মসজিদগুলোতে বাড়তি নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছে। নিউইয়র্ক পুলিশ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা সিটির বিভিন্ন মসজিদে গিয়ে মুসল্লিদের সঙ্গে বৈঠক করছেন।

গত বুধবার (৩ জানুয়ারি) ফজরের নামাজের পর সাউথ অরেঞ্জ এবং ক্যামডেন স্ট্রিটে অবস্থিত মোহাম্মদ মসজিদের সামনে দুর্বৃত্তের গুলিতে নিহত হন হাসান শরীফ।

এ ঘটনার পর মুসলিম কমিউনিটিতে কিছুটা আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। বিশেষ করে মসজিদগুলোতে মুসল্লিদের উপস্থিতি কমে যায়। সমবেদনা জানাতে নিউইয়র্কসহ আশেপাশের এলাকা থেকে মুসলিম নেতৃবৃন্দ ছুটে যান মোহাম্মদ মসজিদে। তারা এই ঘটনার প্রতিবাদ জানান। এরপরই নিউজার্সির মসজিদগুলোতে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়।

এদিকে নিউইয়র্কের কুইন্সে বাংলাদেশিদের পরিচালিত জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টারের আল-মামুর মসজিদে গত ৫ জানুয়ারি শুক্রবার জুমার নামাজের সময় মুসল্লিদের সঙ্গে বৈঠক করেছেন নিউইয়র্ক পুলিশ বিভাগের কর্মকর্তারা।

তারা হলেন- নিউইয়র্ক পুলিশের ডেপুটি কমিশনার (কমিউনিটি অ্যাফেয়ার্স ব্যুরো) মার্ক স্টুয়ার্ট, একই বিভাগের কমান্ডিং অফিসার রিচার্ড টেইলর, ডেপুটি ইন্সপেক্টর ম্যাককল, ১০৭ প্রিসিঙ্কটের কমান্ডিং অফিসার মো সি সাং, নির্বাহী কর্মকর্তা ক্যাপ্টেন খানকাডা, কমিউনিটি অ্যাফেয়ার্স বিভাগের সার্জেন্ট আব্দুল লতিফ প্রমুখ।

এ সময় পুলিশ কর্মকর্তারা মুসল্লিদের আশ্বস্ত করেন যে এ ধরনের ঘটনার পুনরাবৃত্তি যাতে না ঘটে সে ব্যাপারে পুলিশ সচেষ্ট রয়েছে। প্রতিটি মসজিদে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। যে কোনো অনাকাক্সিক্ষত ঘটনায় দ্রুত পুলিশকে অবহিত করার জন্য মসুল্লিদের প্রতি আহ্বান জানান পুলিশ কর্মকর্তারা।

বৈঠককালে জ্যামাইকা মুসলিম সেন্টারের সভাপতি ডা. মোহাম্মদ এম রহমান তুহিন, সাধারণ সম্পাদক আফতাব মান্নান, বর্তমান ট্রাস্টি ও সাবেক সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুর আহমদ চৌধুরী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ফখরুল ইসলাম দেলোয়ার, কার্যকরী সদস্য করিম চৌধুরী, সাবেক কার্যকরী সদস্য মোহাম্মদ সাবুল উদ্দিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ইত্তেফাক/এবি