বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

শ্রীদেবীর রহস্যময় মৃত্যুতে মোদির জাল চিঠি, তরুণী গ্রেপ্তার

আপডেট : ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৭:৪৪

বলিউড অভিনেত্রী শ্রীদেবীর মৃত্যুর পর থেকেই দানা বেঁধেছিল রহস্য। তার অকাল প্রয়াণ কি নিছকই আকস্মিক মৃত্যু, না কি খুন হয়েছিলেন তিনি? আর শ্রীদেবী যদি খুনই হয়ে থাকেন, তাহলে এর নেপথ্যে কে? বছর ছয়েক ধরেই এমন নানা প্রশ্ন নাড়া দিয়েছে ভক্তদের মনে। এবার সিবিআইয়ের পক্ষ থেকে প্রকাশ্যে এলো চাঞ্চল্যকর তথ্য।

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও প্রতিরক্ষামন্ত্রী রাজনাথ সিংয়ের জাল চিঠি দেখিয়ে শ্রীদেবীর রহস্যজনক মৃত্যু নিয়ে বিভিন্ন দাবি তুলেছেন ভুবনেশ্বরের এক ইউটিউবার। তার নাম দীপ্তি আর পিন্নতি। 

তিনি দাবি করেছিলেন যে, শ্রীদেবীর মৃত্যুর ঘটনাকে ভারত সরকার ও আরব আমিরাত সরকারের পক্ষ থেকে ধামাচাপা দেওয়ার চেষ্টা করা হয়েছে। নিজের যুক্তি প্রমাণিত করতে মোদিও প্রতিরক্ষামন্ত্রীর অনুমোদিত বিভিন্ন তথ্য ও চিঠি দেখিয়েছিলেন দীপ্তি। যা কি না পরে ভুয়া বলেই প্রমাণিত হয়। 

এরপর গত বছর ওই নারী ইউটিউবার ও তার আইনজীবীর বিরুদ্ধে মুম্বাইয়ে মামলা দায়ের হয়। মামলার অভিযোগে বলা হয়, দীপ্তি নামে ওই ইউটিউবার নিজের কাছে শ্রীদেবীর মৃত্যুর সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য রয়েছে বলে দাবি করেছেন। 

পাশাপাশি নিজের ইউটিউব চ্যানেলে ভিডিও করে ভারতের প্রধানমন্ত্রীর দপ্তর, প্রতিরক্ষা মন্ত্রক, সুপ্রিম কোর্ট ও সংযুক্ত আরব আমিরাতে সরকারের ভুয়া নথিপত্র পেশ করেছিলেন।

এর আগে, ওই ইউটিউবারের ভুবনেশ্বরের বাড়িতে তল্লাশিও চালিয়েছিল সিবিআই। সেখান থেকে একাধিক ফোন ও ল্যাপটপ বাজেয়াপ্ত করেছিল তারা। জানা গেছে, দীপ্তি নামে ওই ইউটিউবার যেসব নথিপত্র দেখিয়েছেন, সেগুলো সবই ভুয়া। 

ভারতীয় দণ্ডবিধির ১২০বি, ৪৬৫, ৪৬৯ এবং ৪৭১ নম্বর ধারা অনুযায়ী, মামলা দায়ের হয়েছে দীপ্তির বিরুদ্ধে। সেই পরিপ্রেক্ষিতেই এবার তার বিরুদ্ধে চার্জশিট পেশ করল সিবিআই।

ইত্তেফাক/পিএস

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন