সোমবার, ২৭ মে ২০২৪, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

বেড়াতে যেতে মায়ের সঙ্গে অপেক্ষা, লরির ধাক্কায় শিশু নিহত

আপডেট : ১৫ মে ২০২৪, ১৩:৩৫

আত্মীয়ের বাড়ি বেড়াতে যেতে গাড়ির জন্য মায়ের সঙ্গে অপেক্ষা করছিল ৪ বছর বয়সী শিশু হোসাইন। হঠাৎ বেপরোয়া গতির একটি লরি এসে শিশুটিকে ধাক্কা দেয়। পরে হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।  

মঙ্গলবার (১৪ মে) বিকাল সাড়ে ৪টায় কুমিল্লা-নোয়াখালি আঞ্চলিক মহাসড়কের মনোহরগঞ্জ উপজেলার নাথেরপেটুয়া বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় স্থানীয়দের সহযোগীতায় চালককে আটক করে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে লরিটি উদ্ধার করা হয়েছে। 

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশ জানায়, মঙ্গলবার বিকালে মায়ের সঙ্গে নাথেরপেটুয়া বাজারে আসে ৪ বছর বয়সী শিশু হোসাইন। নাথেরপেটুয়া বাজারে পৌঁছে এক আত্মীয়ের বাড়ি বেড়াতে যেতে গাড়ির জন্য অপেক্ষা করছিলেন তারা। ওই সময় নোয়াখালিগামী একটি বেপরোয়া গতির লরি রাস্তার পাশে দাঁড়িয়ে থাকা শিশুটিকে ধাক্কা দেয়। ঘটনাস্থল থেকে অচেতন অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নেওয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। 

শিশুটির বাড়ি নাঙ্গলকোট উপজেলার আদ্রা (দঃ) ইউপির কাকৈরতলা গ্রামে। সে ওই গ্রামের সোহেল ও খাদিজা দম্পতির একমাত্র ছেলে। 

এ ঘটনায় আদরের সন্তানকে হারিয়ে মা খাদিজা আক্তার বারবার মূর্ছা যাচ্ছেন, শোক বিহম্বল বাবা সোহেল হয়ে পড়েছেন বাকরুদ্ধ। শিশুটিকে হারিয়ে ওই পরিবারে চলছে শোকের মাতম। মঙ্গলবার রাত সাড়ে দশটায় জানাজা শেষে তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়।

লাকসাম হাইওয়ে থানার ওসি মো. মুরশেদুল আলম ভুঁইয়া ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ইত্তেফাককে বলেন, ‘লরিচালক মো. হানিফ (৩৫)-কে গ্রেফতার করা হয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে লরিটি উদ্ধার করা হয়েছে।
 
এ ঘটনায় সড়ক পরিবহন আইনে একটি মামলা হওয়ার কথা জানান মনোহরগঞ্জ থানার ওসি সৈয়দ আবু মো. শাহজাহান কবির।  

 

ইত্তেফাক/এসজেড