রোববার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

গুলিবিদ্ধ স্লোভাকিয়ার প্রধানমন্ত্রী, অবস্থা আশঙ্কাজনক

আপডেট : ১৫ মে ২০২৪, ২১:০২

স্লোভাকিয়ার প্রধানমন্ত্রী রবার্ট ফিকোকে গুলি করেছে এক বন্দুকধারী। পরে তাকে হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি অভিযুক্ত হামলাকারীকে আটক করেছে পুলিশ।

বুধবার (১৫ মে) দেশটির রাজধানী থেকে ১৮০ কিলোমিটার উত্তর-পূর্বে হ্যান্ডলোভা শহরে একটি সাংস্কৃতিক কমিউনিটি সেন্টারের সামনে এ ঘটনা ঘটে। সেখানে সরকারি এক বৈঠকে যোগ দিয়েছিলেন তিনি। 

একটি ভিডিও ফুটেজে দেখা যায়, সেন্টারের বাইরে বেশ কিছু মানুষ হামলাকারীকে ধরতে ছুটছে।

ফিকোর অফিসিয়াল ফেসবুক পেজ থেকে তার শারীরিক অবস্থা সম্পর্কে বলা হয়েছে, প্রধানমন্ত্রীকে লক্ষ্য করে একাধিক গুলি ছোড়া হয়েছে এবং তার জীবন হুমকির মধ্যে রয়েছে। এই মুহূর্তে তাকে হেলিকপ্টারে করে বাঙ্কসা বায়াসত্রিকাতে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। কারণ ব্রাতিসলাভাতে পৌঁছাতে বেশি সময় প্রয়োজন হবে।

 

আল জাজিরা জানিয়েছে, পার্লামেন্টে ঘটনার সময় অধিবেশন চলছিল। বিষয়টি সদস্যদের অবহিত করেন ডেপুটি স্পিকার লুবোস ব্লাহা। এরপরই তিনি পরবর্তী নোটিশ না দেওয়া পর্যন্ত অধিবেশন মুলতবি করেন।

গুলির ঘটনায় দেশটির বিদায়ী প্রেসিডেন্ট জুজানা ক্যাপুতোভা বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ওপর ‘নৃশংস ও নির্মম’ হামলার ঘটনায় তিনি হতবাক। একই সঙ্গে তিনি ফিকোর দ্রুত আরোগ্য কামনা করেন।

হামলার নিন্দা জানিয়েছেন ইউরোপীয়ান কমিশনের প্রেসিডেন্ট উরসুলা ভন ডার লিয়েন। তিনি এক্সে বলেছেন- আমাদের সমাজে এমন সহিংসতার কোনো স্থান নেই। এটা গণতন্ত্রকে হেয় করে। প্রধানমন্ত্রী ফিকো ও তার পরিবারের প্রতি আমার সমবেদনা।

গত সেপ্টেম্বরে নির্বাচনের মধ্য দিয়ে ফিকো ক্ষমতায় ফেরেন। প্রধানমন্ত্রী হিসেবে তাঁর প্রথম কয়েক মাস রাজনৈতিকভাবে অত্যন্ত বিতর্কিত ছিল। জানুয়ারিতে তিনি ইউক্রেনে সামরিক সহায়তা বন্ধ করে দেন এবং গত মাসে সরকারি সম্প্রচারকেন্দ্র আরটিভিএস বাতিল করার পরিকল্পনা করেন। এর আগে তিনি দুই দফায় প্রধানমন্ত্রী ছিলেন।

ইত্তেফাক/এবি