শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

অবশেষে পারল লেভারকুসেন, নজর এখন ট্রেবলে

আপডেট : ২০ মে ২০২৪, ১৪:২৬

পাঁচ ম্যাচ হাতে রেখেই নিজেদের ১২০ বছরের ইতিহাসে প্রথম বারের মতো জার্মান বুন্দেসলিগার শিরোপা জিতে বায়ার লেভারকুসেন। তখন ক্লাবটির কোচ জাভি আলোনসো বলেছিলেন, ‘অপরাজিত থেকে মৌসুম শেষ করতে চায় তারা।’ শুধু বলেই ক্ষান্ত হননি লেভারকুসেন বস, করেও দেখিয়েছেন সেটা। আর তাতে বুন্দেসলিগার ইতিহাসের প্রথম ক্লাব হিসেবে অপরাজিত থেকে মৌসুম শেষ করার রেকর্ড গড়ল লেভারকুসেন।

বুন্দেসলিগার চলতি মৌসুমের শেষ ম্যাচে গেল পরশু রাতে অগসবার্গয়ের বিপক্ষে মাঠে নামে আলোনসোর শিষ্যরা। এই ম্যাচে ২-১ গোলে জয় তুলে নিয়ে অপরাজিত থেকে মৌসুম শেষ করে জার্মান ক্লাবটি। ম্যাচের শেষ বাশি বাজতেই মাঠে উল্লাসে মেতে উঠেন লেভাকুসেনের খেলোয়াড় থেকে শুরু করে কোচিং স্টাফরা ও উপস্থিত দর্শকরা। খেলোয়াড়রা দৌড়ে গিয়ে গ্যালিরিতে থাকা দর্শকদের সঙ্গে উদযাপনে যোগ দেন। হাততালি দিয়ে গ্যালারিতে থাকা দর্শকদের সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ জানায় খেলোয়াড়রা। 

ম্যাচ শেষে লেভাকুসেনের রাজপথ আনন্দ মিছিলে যোগ ক্লাবটির হাজার হাজার সমর্থকরা। আতশবাজির আওয়াজের মুখরিত হয়ে ওঠে স্টেডিয়ামের আশপাশের এলাকা। দর্শকদের এমন উদ্যাপন ছিল প্রত্যাশিত। গেল মৌসুমে বুন্দেসলিগায় ষষ্ঠ অবস্থানে থেকে লিগ শেষ করে লেভারকুসেন। কে জানত জাভি আলোনসোর নেতৃত্বে এভাবে ঘুরে দাঁড়াবে ক্লাবটি। চলতি মৌসুমে বুন্দেসলিগায় ৩৪ ম্যাচ খেলে ২৮ জয় ও  ৬ ড্রয়ে ৯০ পয়েন্ট নিয়ে সবার শীর্ষে থেকে মৌসুম শেষ করে ক্লাবটি। লেভারকুসেনের চেয়ে ১৭ পয়েন্ট কম নিয়ে দ্বিতীয় হয় স্টুটগার্ট। সব লিগ মিলিয়ে চলতি মৌসুমে মোট ৫১টি ম্যাচ খেলে লেভারকুসেন। সবগুলো ম্যাচেই ‘আনবিটেন’ রয়েছে জার্মান ক্লাবটি।  

অপরাজিত থেকে লিগ শেষ করায় নিজেদের ইউরোপের ইতিহাসের একটি অংশ বলে মনে করেন লেভারকুসের কোচ জাভি আলোনসো। এই নিয়ে তিনি বলেন, ‘এটি একটি অন্যরকম মৌসুম। যা আমরা তৈরি করতে পেরেছি। শুধু জার্মানিতে নয়, আমি মনে করি পুরো ইউরোপে। আমরা প্রিমিয়ার লিগে ২০১১-১২ জুভেন্টাসের ও ২০০৩-০৪ মৌসুমের আর্সেনালের কথা মনে রেখেছি। আমরা এখন ইউরোপের ফুটবলের ইতিহাসের একটি অংশ।’ শুধু বুন্দেসলিগা ইতিহাস গড়ে ক্ষান্ত থাকতে চান না লেভারকুসেন বস। কেননা প্রথমবারের মতো ট্রেবল জয়ের হাতছানি ক্লাবটির সামনে এ নিয়ে তিনি বলেন, ‘আমি মনে করি, আমাদের আরো সময় দরকার। কিন্তু হাতে বেশি সময় নেই। বুধবার আমাদের সামনে বড় লক্ষ্য।’

এমন ইতিহাস গড়ার পর ক্লাবটির ডিফেন্ডার জোনাথন তাহ বলেন, ‘এই দলের অংশ হতে পেরে আমি গর্বিত। এত বছর পর এখানে বিশেষ কিছু অর্জন করতে পেরে আমি অনেক উচ্ছ্বসিত।’ এছাড়াও কোচকে নিয়ে তিনি বলেন, ‘জাভি আলোনসো কৌশলগত ও ব্যাক্তিগতভাবে একজন অসাধারণ কোচ। আমাদের এই সাফল্যের পেছনে তার অবদান সবচেয়ে বেশি।’ 

অন্যদিকে নিজ দলের খেলোয়াড়দের নিয়ে আলোনসো বলেন, ‘ভালো খেলোয়াড়  থাকলে কোচের কাজ অনেক সহজ হয়ে যায়। এখানে আমার একটি অসাধারণ স্কোয়াড আছে। ক্লাবের পরিবেশও বেশ ভালো। এ ধরনের খেলোয়াড়দের সঙ্গে কাজ করতে পারে আমি খুবই গর্বিত।’

এমন ইতিহাসের পর দলের আত্মবিশ্বাস তুঙ্গে বলে মনে করছেন আলোনসো। সেইসঙ্গে প্রথম বারের মতো ট্রেবল জয়ের বিষয়েও আশাবাদী তিনি। আগামী বুধবার ইউরোপা লিগের ফাইনালে ইতালিয়ান ক্লাব আতালান্টার বিপক্ষে মাঠে নামবে লেভারকুসেন। এরপর ২৫ মে কাইজারস্লাউতার্নের বিপক্ষে জার্মান কাপের ফাইনাল খেলতে নামবে লেভারকুসেন। এই দুই ম্যাচ জিতলে প্রথম বারের মতো ট্রেবল জয়ের স্বাদ পাবে ইতিহাস গড়া এই ক্লাবটি।

ইত্তেফাক/জেডএইচ

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন