মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

বেনজীর প্রসঙ্গে কাদের

‘যেই হোন, অপরাধ করলে শাস্তি পেতে হবে’ 

আপডেট : ২৪ মে ২০২৪, ১৩:৪৩

যত প্রভাবশালী হোন, অপরাধী হিসেবে সাব্যস্ত হলে আমরা তাকে প্রটেকশন দিতে যাব না বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। তিনি বলেন, অপরাধ করলে তাকে শাস্তি পেতেই হবে, তিনি সাবেক আইজিপি হোন বা সেনাপ্রধান হলেও। আজ শুক্রবার সকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি এ কথা বলেন।

সাবেক আইজিপি বেনজীর আহমেদের সম্পত্তি বাজেয়াপ্তে আদালতের নির্দেশ ও সাবেক সেনাপ্রধানের ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞায় সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে বলে মনে করেন কি না গণমাধ্যমকর্মীদের এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, কোনো ব্যক্তি যত প্রভাবশালী হোক, অপরাধ-অপকর্ম করতে পারে। প্রশ্ন থেকে যায় যে, সরকার তাদের শাস্তি পাওয়ার ব্যাপারে সৎ সাহস দেখিয়েছে কি না?

তিনি বলেন, শেখ হাসিনা সরকারের সেই সৎ সাহস আছে। অপরাধ করে কেউ পার পাবে না। বিচার বিভাগ স্বাধীন, দুদক স্বাধীন। সেখানে যদি অপরাধী হিসেবে সাব্যস্ত হয় কেউ, আমরা কেউ প্রটেকশন দিতে যাব না—তিনি সাবেক আইজিপি হোন নাকি সাবেক সেনাপ্রধান হোন।

আওয়ামী লীগের এ শীর্ষ নেতা বলেন, আবরার হত্যাকাণ্ডে যাদের দণ্ড হয়েছে তারা সবই ছাত্রলীগের কিন্তু সরকার তাদের প্রটেকশন দিতে যায়নি। বিশ্বজিৎ হত্যাকাণ্ডে যে ফাঁসি হয়েছিল, সেখানেও সরকার কোনো প্রটেকশন দিতে যায়নি। তিনি আরও বলেন, ব্যক্তি অপরাধ করতে পারে। প্রশ্ন হচ্ছে, সরকার তাকে প্রটেকশন দিচ্ছে কি না? প্রধানমন্ত্রী এ ব্যাপারে জিরো টলারেন্সে আছেন। কাজেই অপরাধীকে অপরাধী হিসেবে আমরা দেখি। সে যে-ই হোক, যত প্রভাবশালীই হোক, অপরাধ করলে শাস্তি তাকে পেতেই হবে।

আরেক প্রশ্নের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, মির্জা ফখরুল প্রতিদিনই অনেক কথা বলেন। তার মানসিক ট্রমা মনে হয় ভয়ঙ্কর পর্যায়ে উপনীত হয়েছে। তিনি এবং বিএনপি নেতারা অন্ধকারে ঢিল ছোড়েন। তারা বাস্তবতা থেকে অনেক দূরে।

এই সরকারের আমলে কোনো নিরীহ লোক কোনো প্রকার হয়রানি-জেল-জুলুমের মুখোমুখি হয়নি উল্লেখ করেন ওবায়দুল কাদের। বিএনপি মহাসচিবের উদ্দেশে তিনি বলেন, এখন আপনাদের দল প্রকাশ্য দিবালোকে পুলিশকে হত্যা করেছে, সাংবাদিকদের নির্যাতন করেছে, প্রধান বিচারপতির বাড়িতে হামলা চালিয়েছে, পুলিশ হাসপাতালে হামলা চালিয়েছে, আনসারকে মেরেছে। এখন এসব অপরাধের সঙ্গে যারা জড়িত, তারা তো অপরাধী! তাদেরকে বিএনপি হিসেবে আটক করা হয়নি, আটক করা হয়েছে খুন, অগ্নিসন্ত্রাস, সন্ত্রাসের সঙ্গে জড়িত থাকার অপরাধে।

ইত্তেফাক/জেডএইচডি