শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

‘দিন দিন আমাদের প্রোডাক্ট বানানো হচ্ছে!’

আপডেট : ০৯ জুন ২০২৪, ১০:২৮

অভিনেতা মীর সাব্বির। অভিনয়ের গণ্ডি পেরিয়ে এরইমধ্যে সিনেমা নির্মাণেও দক্ষতার পরিচয় দিয়েছেন। প্রস্তুতি নিচ্ছেন নতুন সিনেমার। পাশাপাশি ঈদের একাধিক নাটক ও বিজ্ঞাপনের কাজ নিয়ে ব্যস্ত সময় পার করছেন তিনি। নিজের কর্মপরিকল্পনা এবং ইন্ডাস্ট্রির নানা সংগতি-অসংগতি নিয়ে কথা বললেন ইত্তেফাকের সঙ্গে। সাক্ষাত্কার নিয়েছেন এ এম রুবেল

ঈদে বিশেষ কী নিয়ে হাজির হচ্ছেন?

এই ঈদে খুব বেশি কাজ করতে পারিনি। ৪-৬টি কাজ এবার প্রচারিত হবে। সম্প্রতি শেষ করেছি একটি ৭ পর্বের ধারাবাহিক, একটি টেলিফিল্মসহ দু-তিনটি নাটকের কাজ। এর বাইরে নিয়মিত কাজ বলতে, ‘মিলন হবে কতদিনে’ নামে নতুন একটি সিরিয়ালের শুটিং চলছে। একটি ধারাবাহিকের কাজ কাল থেকে শুরু হবে। পাশাপাশি কয়েকটি বিজ্ঞাপনের কাজও করলাম। এছাড়াও প্রচারিত হচ্ছে ‘গেলমাল’ এবং ‘চিটার অ্যান্ড জেন্টলম্যান’ সিরিয়ালগুলো।

এক নামে শুটিং, অন্য নামে প্রচার!—ইদানীং এই বিষয়টি নিয়ে অনেকেই কথা বলছেন। আপনার অভিজ্ঞতা কেমন?

আমার ক্ষেত্রে তো এমনটা অসংখ্যবার হয়েছে। ‘ঘোড় সওয়ার’ নামে নাটকের শুটিং করেছি, অথচ ইউটিউবে দেখলাম ‘ঘোড়ার ডিম’। যখন এমনটা দেখি তখন সত্যি বিভ্রান্ত হই। ভাবি, এই নাম তো শুটিংয়ের সময় ছিল না। টিভি চ্যানেলের ক্ষেত্রে এটা হয় না। তবে ইউটিউবের ক্ষেত্রে হয়। তারা ব্যবসায়িক স্বার্থে একটু অদ্ভুত বা পাগলাটে অথবা অশ্লীল নাম ব্যবহার করে। মনে করে এতে দর্শকরা দ্রুত গ্রহণ করবে।

এতে আপনাদের ইমেজ সংকটে পড়ছে কি-না?

অবশ্যই আমাদের ইমেজ নষ্ট হচ্ছে। একটা শ্রেণি হয়তো এ ধরনের নাম খোঁজে। কিন্তু রুচিশীল দর্শকরা এই নামগুলো দেখে ক্লিকই দিচ্ছে না। এতে আমাদের ক্ষতি হচ্ছে। আমরা আসলে প্রোডাক্ট হয়ে গেছি! দিন দিন আমাদের প্রোডাক্ট বানানো হচ্ছে! যে যেভাবে পারছে আমাদের বিক্রি করে নিজেদের ফায়দা লোটার চেষ্টা করছে। কিন্তু শিল্পী তো একদিনে তৈরি হয় না। অনেক ত্যাগ, পরিশ্রম, ভালোবাসার পরই একজন শিল্পীর জন্ম হয়। আমি মনে করি, একজন ভালো শিল্পী, নির্মাতা, গল্প মিলিয়ে ভালো ভালো কাজ এলে তবেই ইন্ডাস্ট্রির খুঁটি মজবুত হয়। কিন্তু ইদানীং এই খুঁটি নড়বড়ে হয়ে যাচ্ছে।

কিন্তু এখন তো সবাই নির্মাতা-শিল্পী বনে যাচ্ছেন...

এখন তো প্ল্যাটফর্ম পরিবর্তন হয়েছে। ইউটিউবের কারণে মানুষের সাহস বেড়ে গেছে। অশিল্পী নিজেকে শিল্পী দাবি করছেন, অলেখক নিজেকে লেখক দাবি করছেন। যে মিউজিক ডিরেকশনের ‘ম’ জানেন না, তিনিও বলছেন এবার ২০টা নাটক মেকাআপ করেছি! আসলে এখন চাহিদার চেয়ে জোগান বেশি হয়ে গেছে। আর এমনটা হলে একটা গন্ডগোল তৈরি হয়। যার ভেতর দিয়ে আমরা যাচ্ছি।

নতুন সিনেমা নির্মাণের কথা বলেছিলেন। অগ্রগতি কতদূর?

আমার দ্বিতীয় সিনেমা নির্মাণের কাজ শিগগিরই শুরু হতে যাচ্ছে। এরইমধ্যে সব কিছু রেডি করে ফেলেছি। শুধু ঘোষণা দেওয়া বাকি। ‘রাতজাগা ফুল’-এর মতোই দারুণ একটি গল্পে সিনেমাটি নির্মাণ করব।

ইত্তেফাক/এএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন