‘মামলা আর গ্রেফতার হবে জেনেই ইয়াবার কারবার করে’

‘মামলা আর গ্রেফতার হবে জেনেই ইয়াবার কারবার করে’
রমনা থানার নিউ ইস্কাটন এলাকা থেকে উদ্ধার করা ইয়াবা। ছবি : ইত্তেফাক

‘এক সময় ইয়াবা সেবন করতো। আর ইয়াবা সেবন করতে গিয়ে জড়িয়ে পড়ে মাদক কারবারীদের দলে। গত চার বছরে গ্রেফতার হয়েছে কয়েকবার। জেলবাস, এরপর মাদক কারবারীদের সহায়তায় মুক্তি। ফলে মামলা হবে, গ্রেফতার হবে এমনটা ধরে নিয়েই ইয়াবার ব্যবসা চালিয়ে যাচ্ছে।’

মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের জিজ্ঞেসবাদে শনিবার এমনই তথ্য জানিয়েছে ইয়াবা কারবারী আব্দুল কাদের ওরফে শাহিন। মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ রাজধানীর নিউ ইস্কাটন এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করে। এ সময় উদ্ধার করে ২৬ হাজার পিস ইয়াবা। এ ঘটনায় রমনা থানায় মামলা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের লালবাগ জোনাল টিমের অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার শামসুল আরেফীন।

আরো পড়ুন : জাতীয় সংসদ অধিবেশন উপলক্ষে ডিএমপির নিষেধাজ্ঞা

এ গোয়েন্দা কর্মকর্তা জানান, গোপন তথ্য ছিল- কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ী মিনিবাসযোগে কক্সবাজার থেকে ইয়াবার চালান নিয়ে ঢাকায় আসছে। প্রাপ্ত সংবাদের প্রেক্ষিতে গোয়েন্দা লালবাগ জোনাল টিম রমনা থানার নিউ ইস্কাটন এলাকায় মিনিবাসটি আটক করে। এ সময় দৌড়ে পালানোর চেষ্টাকালে শাহীনকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত শাহীনের পিঠে ঝুলানো একটি ব্যাগ থেকে ১৬ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। পরবর্তীতে জব্দকৃত মিনিবাস তল্লাশি করে আরও ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

তিনি জানান, গ্রেফতারকৃত শাহীন কক্সবাজারের টেকনাফ থেকে ইয়াবা সংগ্রহ করে। পরে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন জেলায় সরবরাহ করতো। শাহিনের গ্রামের বাড়ি বগুড়ায়। তার বিরুদ্ধে সবুজবাগ, মতিঝিলসহ নগরীর বিভিন্ন থানায় মামলা রয়েছে। তাকে রিমান্ডে এনে বিস্তারিতভাবে জিজ্ঞাসাবাদ করা গেলে আরও তথ্য পাওয়া যাবে। তার অপর সহযোগীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।

ইত্তেফাক/ইউবি

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x