ঢাকা সোমবার, ১৭ জুন ২০১৯, ৩ আষাঢ় ১৪২৬
৩২ °সে


কাজের গতি বাড়াতেই মন্ত্রিসভায় পরিবর্তন আনা হয়েছে: কাদের

কাজের গতি বাড়াতেই মন্ত্রিসভায় পরিবর্তন আনা হয়েছে: কাদের
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। ছবি: সংগৃহীত

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, 'সময়ের প্রয়োজনে কাজের গতি বাড়াতে মন্ত্রিসভায় পরিবর্তন আনা হয়েছে।' সোমবার সেতু ভবনে এক মতবিনিময় সভায় দুই মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রীদের দায়িত্ব ভাগ করে দেওয়ার বিষয়টি নিয়ে সাংবাদিকদের এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

তিনি বলেন, 'এটা কাজের সুবিধার জন্য। কাজের সুবিধার জন্য পুনর্বিন্যাস, পূণর্গঠন অনেক সময় প্রয়োজন হয়ে পড়ে। প্রধানমন্ত্রী যেহেতু টিম লিডার। এই জাহাজের ক্যাপ্টেন, কাজেই রাষ্ট্রীয় জাহাজটি যাতে ভালোভাবে চলে, গতি সম্পন্ন হয়, সমন্বয় নিয়ে যেন চলতে পারে, সেজন্য প্রধানমন্ত্রী সময়ের চাহিদা মেটানো, বাস্তবতাকে আলিঙ্গণ করবেন এবং সেজন্য এই ধরনের ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।'

তিনি আরও বলেন, 'মন্ত্রী পরিষদ গঠন, পুনর্বিন্যাস, পরিমার্জন, পরিবর্ধনের এখতিয়ারটি সম্পূর্ণভাবে প্রধানমন্ত্রীর। এ ধরনের পদক্ষেপ সব দেশেই নেওয়া হয়।' মন্ত্রিপরিষদে পরিবর্তন নিয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে সমালোচনার বিষয়ে তিনি জানান, 'সে ধরনের কোনো বিষয় নয়, এটা হচ্ছে কাজের সুসমন্বয়, কাজের গতি, কাজের মান। এই বিষয়টিকে নিশ্চিত করার জন্য কাজটা ভাগ করে দিলে গতিটা বাড়ে, সমন্বয় বাড়ে এবং কাজের কোয়ালিটি বাড়ে, কাজ আরও বেশি করে করা যায়। সে দিকটাকে অবশ্যই প্রধানমন্ত্রী দেখেছেন।'

আরও পড়ুন: দেশে আইএস’র কোন হুমকি নেই: র‌্যাব ডিজি

এর আগে, রবিবার সরকার গঠনের প্রায় পাঁচ মাস পর প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশে মন্ত্রিসভায় প্রথম পরিবর্তন আনা হয়। এই পরিবর্তনের ফলে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয় এবং ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ে দায়িত্বরত মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রীদের দায়িত্ব ভাগ করে দেওয়া হয়। বর্তমানে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের দায়িত্বে থাকছেন মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। আর মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ দেখবেন প্রতিমন্ত্রী জুনা‌ইদ আহমেদ পলক। আবার স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায়মন্ত্রী মো. তাজুল ইসলাম ইসলামকে স্থানীয় সরকার বিভাগে রেখে প্রতিমন্ত্রী স্বপন ভট্টচার্য্যকে শুধু পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় বিভাগের দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। এদিকে প্রতিমন্ত্রী মুরাদ হাসানকে স্বাস্থ্য থেকে সরিয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ে দেওয়া হয়েছে।

ইত্তেফাক/জেডএইচডি

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
১৭ জুন, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন