ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন ২০১৯, ১৩ আষাঢ় ১৪২৬
৩২ °সে


ঘরে বসে থাকলে আন্দোলন সফল হয় না: সেতুমন্ত্রী

ঘরে বসে থাকলে আন্দোলন সফল হয় না: সেতুমন্ত্রী
ওবায়দুল কাদের। ফাইল ছবি

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘আন্দোলনের ডাক দিয়ে ঘরে বসে থাকলে আন্দোলন সফল হয় না।’ তিনি বলেন, ‘আন্দোলনের ডাক দিয়ে বিএনপির নেতাকর্মীরা ঘরে বসে হিন্দি সিরিয়াল দেখতে থাকেন। ঘরে বসে থাকলে আন্দোলন কি সফল করা যায়? আন্দোলনের ডাক দিয়ে ঘরে বসে থাকলে আন্দোলন সফল হয় না।’

আজ সোমবার সচিবালয়ের মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে সমসাময়িক ইস্যুতে গণমাধ্যমের সঙ্গে মতবিনিময় ও ঈদ শুভেচ্ছা বিনিময়কালে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন।

‘পরিবেশ না থাকায় বিএনপি নেতারা এলাকায় যেতে পারেনি’ বিএনপি নেতাদের এমন বক্তব্যের জবাবে সেতু মন্ত্রী বলেন, এবার এ রকম কোনো পরিবেশগত সমস্যা কোথাও ছিল না। এটা বিরোধী দলের একটা সুবিধা। ইচ্ছা করেই তারা এলাকায় যান না। আর পরিবেশের অভিযোগ তোলেন। এসব ব্যাপারে সবচেয়ে বেশি অভিযোগ করেন মওদুদ আহমেদ। তিনি তো এবার এলাকায় ছিলেন। তিনি কি কোনো অভিযোগ করেছেন?

‘সংসদ সদস্য ব্যারিস্টার রুমিন ফারহানা বলেছেন এ সংসদ অবৈধ’ এ বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘যে সংসদ অবৈধ, সে সংসদের সদস্য হওয়ার জন্য তিনি এত সিরিয়াস হলেন কেন? সংসদ অবৈধ হলে তিনি কি বৈধ? কোনো বৈধতার সূত্রে তিনি সংসদে গেলেন?’

তিনি বলেন, সংসদ নিয়ে বিএনপির স্ব-বিরোধিতা পরিষ্কার। পার্টির মহাসচিব নির্বাচিত হয়েও শপথ নিলেন না। তার জায়গায় আবার বিএনপির জেলা সভাপতি উপ-নির্বাচন করছেন। এই নীতি নিয়ে যারা চলেন, তারা অতীতেও আন্দোলনে ব্যর্থ হয়েছেন, আগামীতে ব্যর্থ হবেন।

এ সময় এবারের ঈদ যাত্রার বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ঈদ যাত্রা এবার ভালো ছিল। শুধু টাঙ্গাইলে কিছুটা সমস্যা হয়েছে। সড়ক দুর্ঘটনার হার এবার কম ছিল। এটা আসলে সড়কের শৃঙ্খলার অভাবে হয়েছে। আমাদের স্বস্তি পাওয়ার সুযোগ নেই। শৃঙ্খলা ফিরিয়ে আনতে হবে।

আরও পড়ুন: বৃষ্টিতে সাময়িক বন্ধ দক্ষিণ আফ্রিকা-ওয়েস্ট ইন্ডিজ ম্যাচ

মাদ্রাসা ছাত্রী নুসরাত হত্যার বিষয়ে সরকারের কোনো দুর্বলতা নেই জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, সরকার প্রধান এ বিষয়ে খুব কঠোর। সুতরাং এক্ষেত্রে কারো ক্ষেত্রে শৈথিল্যে দেখানোর অবকাশ নেই। ওসি এখনো ধরা পড়েনি। হয়তো শুনবেন খুব শিগগির ধরা পড়েছে এবং তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে।

সেতুমন্ত্রী বলেন, বঙ্গবন্ধু সেতুতে একমাত্র রাষ্ট্রপতির গাড়ি টোলবিহীন চলাচল করে। প্রধানমন্ত্রীকেও টোল দিয়ে এই সেতু অতিক্রম করতে হয়। তবে ভবিষ্যতে এই সেতু দিয়ে চলাচল করা অ্যাম্বুলেন্স, ফায়ার সার্ভিস এবং পুলিশের গাড়ি টোল ফ্রি করা যায় কি-না সে বিষয়টি নিয়ে ভাবা হচ্ছে।

আগামী এক মাসের মধ্যে রাইড শেয়ারিং নীতিমালা অনুমোদন করা হবে জানিয়ে তিনি বলেন, পরিবহন শ্রমিকদের কাছে সরকার জিম্মি নয়। তাদের আন্দোলনের কারণেই সড়ক পরিবহন আইনটি কার্যকর করা যায়নি। আন্দোলনের সময় তারা ছিল ঐক্যবদ্ধ। সরকারের পক্ষ থেকে বিভিন্ন আলোচনা করে এই আইনটি কার্যকর করার উদ্যোগ নেওয়া হলেও তা করা যায়নি। বাসস

ইত্তেফাক/কেকে

এই পাতার আরো খবর -
  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
facebook-recent-activity
prayer-time
২৭ জুন, ২০১৯
আর্কাইভ
বেটা
ভার্সন