দিল্লি কাণ্ডে ৮৬ পুলিশ আহত, মামলা হয়েছে ১৫টি

দিল্লি কাণ্ডে ৮৬ পুলিশ আহত, মামলা হয়েছে ১৫টি
পুলিশ ব্যারিকেড ভাঙছেন আন্দোলনরত কৃষকরা। ছবি: সংগৃহীত

ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে দিল্লিতে কৃষকদের বিক্ষোভে সংঘর্ষের জেরে ১৫টি মামলা করেছে পুলিশ। স্থানীয় সময় গতকাল মঙ্গলবারের (২৬ জানুয়ারি) সংঘর্ষে ৮টি বাস এবং ১৭টি ব্যক্তিগত গাড়ি ভাংচুরের ঘটনা ঘটেছে। নিহত হয়েছে এক কৃষক।

এনডিটিভির বরাতে জানা যায়, সংঘর্ষে আহত হয়েছেন ৮৬ পুলিশ সদস্য। এর মধ্যে দুজনের অবস্থা গুরুতর। পাঞ্জাব ও হরিয়ানা রাজ্যে উচ্চ সতর্কতা জারি করা হয়েছে। দিল্লি, হরিয়ানাসহ আশেপাশের রাজ্যগুলোতে বন্ধ রয়েছে ইন্টারনেট ও এসএমএস সেবা। নিরাপত্তা নিশ্চিতে দিল্লিতে আধাসামরিক বাহিনীর ১৫টি কোম্পানি মোতায়েন করেছে কর্তৃপক্ষ। এছাড়াও সিংঘু সীমান্তে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে।

এর আগে মঙ্গলবার, ভারতের প্রজাতন্ত্র দিবসে দিল্লিতে কৃষকদের ট্রাক্টর মিছিলের জেরে সকাল থেকেই পুলিশের সঙ্গে দফায় দফায় সংঘর্ষ বাঁধে।

আরও পড়ুন: দিল্লির লালকেল্লা দখল করলো কৃষকরা

জানা যায়, তিনটি বিতর্কিত কৃষি আইনের প্রতিবাদে ভারতের রাজধানী দিল্লিতে মঙ্গলবার সকাল থেকেই বিক্ষোভ শুরু করেন কৃষকরা। প্রজাতন্ত্র দিবসে এই বিক্ষোভ করছেন তারা। কথা ছিল স্থানীয় সময় দুপুর ১২টার পর শুরু হবে ট্রাক্টর শোডাউন। কিন্তু সকাল সাড়ে ৮টার দিকেই সিংঘু সীমান্তে পুলিশের ব্যারিকেড ভেঙে ফেলেন কৃষকরা।

নির্ধারিত সময়ের অনেক আগেই ট্রাক্টর নিয়ে দিল্লিতে ঢুকতে শুরু করেন তারা। হাজার হাজার কৃষক ট্রাক্টর নিয়ে সকাল থেকেই মিছিল শুরু করে দেন। ট্রাক্টর র‍্যালি ঘিরে উত্তেজনার মধ্যে কৃষকদের উপর লাঠিচার্জের অভিযোগ ওঠে পুলিশের বিরুদ্ধে। পরিস্থিতি সামলাতে কাঁদানে গ্যাসও নিক্ষেপ করা হয়।

এ ঘটনায় যারা জড়িত ছিলেন তারা প্রকৃত কৃষক নয় বলে মন্তব্য করেছেন পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী অমরিন্দর সিং।

ইত্তেফাক/টিআর

  • সর্বশেষ খবর
  • সর্বাধিক পঠিত
আরও
আরও
x