মঙ্গলবার, ২৯ নভেম্বর ২০২২, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

বিআইডিএসের জরিপ 

করোনাকালে ৮৭ শতাংশ প্রতিবন্ধী স্বাস্থ্যসেবা পেতে সমস্যায় পড়েছেন

আপডেট : ০৪ নভেম্বর ২০২১, ০১:৫৭

করোনাকালে প্রতিবন্ধী মানুষদের স্বাস্থ্যসেবা পেতে ভোগান্তি বেড়েছে। সাধারণ মানুষের চেয়ে তাদের সমস্যা অনেক বেশি লক্ষ্য করা গেছে। করোনাকালে প্রতিবন্ধী যারা স্বাস্থ্য সেবার জন্য গিয়েছেন, তাদের মধ্যে ৮৭ ভাগ সমস্যায় পড়েছেন। সরকারি প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ উন্নয়ন গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (বিআইডিএস) এক জরিপে এই তথ্য উঠে এসেছে। প্রতিবন্ধীদের মধ্যে যারা প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা এবং আয়ের দিকে অনগ্রসর, তারা বেশি সংকটে পড়েছেন বলে জরিপে উঠে এসেছে। 

বুধবার (৩ নভেম্বর) বিআইডিএস মিলনায়তনে আয়োজিত সেমিনারে এই জরিপ প্রতিবেদন প্রকাশ করা হয়। বিআইডিএসের জ্যেষ্ঠ গবেষক ড. আনোয়ারা বেগমের নেতৃত্বে এই গবেষণাটি করা হয়। জরিপের বিভিন্ন দিক তুলে ধরে তিনি বলেন, পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) তথ্য অনুযায়ী, দেশে প্রতিবন্ধী মানুষের সংখ্যা প্রায় দেড় কোটি। যা মোট জনসংখ্যার ৯ দশমিক ২ শতাংশ। করোনা মহামারিতে সাধারণ মানুষের চেয়ে প্রতিবন্ধী মানুষেরা সবচেয়ে ঝুঁকিতে থাকে। প্রতিবন্ধী নারী, পুরুষ ও শিশুদেরকে একদিকে যেমন প্রায়শ সামাজিক নিন্দা, অপবাদ, ঘৃণা, লজ্জা, নিগ্রহ অর্থাৎ সামাজিক কুসংস্কারের শিকার হতে হয়, অন্যদিকে তেমনি আর্থিক ও সামাজিকভাবে অন্যদের উপর নির্ভরশীল থাকতে হয়। এছাড়া তাদের জন্য সেবাদানকারী, সাহায্যকারী, পরিচর্যাকারী ও দোভাষীর প্রয়োজন হয় বিধায় তাদের পক্ষে সামাজিক দূরত্ব মেনে চলা সম্ভব হয় না। যথাযথ যানবাহন পরিষেবার অভাব তাদের সমস্যাকে আরও জটিল করে তুলে।

এই গবেষণার মূল উদ্দেশ্য হলো মহামারিকালে প্রতিবন্ধী মানুষের স্বাস্থ্যসেবা সুবিধা প্রাপ্তিতে বৈষম্য ও অসমতার পাশাপাশি স্বাস্থ্যসেবা সুবিধা প্রাপ্তির ক্ষেত্রে বিদ্যমান প্রতিবন্ধকতাগুলোর মাত্রা ও তীব্রতা সম্পর্কে ধারণা লাভ করা। সম্মুখসারিতে থাকা হাসপাতালগুলোতে কর্মরত নার্সদের পাশাপাশি প্রতিবন্ধীসহ মোট ৬৫টি সাক্ষাৎকার নেওয়া হয়েছে। 

প্রতিবেদনের সুপারিশে বলা হয়, প্রতিবন্ধী মানুষের জন্য চিকিৎসা নিশ্চিত করতে সংশ্লিষ্ট নীতিনির্ধারক, চিকিৎসক ও নার্সদের বিশেষ প্রশিক্ষণকে অগ্রাধিকার দিতে হবে। প্রতিবন্ধীদের মধ্যে যারা দরিদ্র তাদের জন্য বিনামূল্যে মাস্ক বিতরণ, হাত ধোয়ার সেনিটাইজার দেওয়া ও  ভর্তুকি মূল্যে মেডিকেল সেবা চালু করারও পরামর্শ দেওয়া হয়। 

সেমিনারে বিআইডিএসের মহাপরিচালক ড. বিনায়ক সেন বলেন, প্রতিবন্ধীদের চিকিৎসা সেবা কিংবা অন্যান্য যেকোনো সেবার ক্ষেত্রে তাদের প্রকৃত শ্রেণীকরণ খুব জরুরি।

 

ইত্তেফাক/এমএএম