শুক্রবার, ২৭ মে ২০২২, ১৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

দ্বিতীয় বিয়ে করতে চাওয়ায় বাবাকে হত্যা করে ট্যাংকে ফেলে দিলো ছেলে

আপডেট : ২০ জানুয়ারি ২০২২, ১৪:৫৬

দ্বিতীয় বিয়ে করতে চাওয়ায় বাবা সাজ্জাদ হোসেনকে (৬৫) হত্যার পর বাড়ির টয়লেটের সেফটিক ট্যাংকে লাশ ফেলে গুম করতে চেয়েছিল ছেলে। বৃহস্পতিবার (২০ জানুয়ারি) সকালে পুলিশ বাবার লাশ উদ্ধার এবং ঘাতক ছেলে স্বপনকে (৩২) আটক করেছে। রাজশাহীর দামকুড়া থানার আসগ্রাম পাটনিপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন দামকুড়া থানার ওসি মাহবুব আলম।

তিনি জানান, গত মঙ্গলবার রাত থেকে সাজ্জাদ হোসেন নিখোঁজ ছিলেন। এ ঘটনায় বুধবার রাতে তার ভাই আব্দুল হাদী দামকুড়া থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। ওই জিডির সূত্র ধরে পুলিশ স্বপনকে জিজ্ঞাসাবাদ করে। পরে স্বপন স্বীকার করে তিনি তার বাবাকে প্রথমে শ্বাসরোধ করে হত্যার চেষ্টা করেন। এতে ব্যর্থ হলে গলাকেটে মৃত্যু নিশ্চিত করেন। পরে লাশ গুমের উদ্দেশ্যে বাড়ির টয়লেটের সেফটিক ট্যাংকে ফেলে দেয়।

স্বপনের স্বীকারোক্তির বরাত দিয়ে ওসি আরও জানান, এক বছর আগে স্বপনের মা মারা যান। এরপর বাবা দ্বিতীয় বিয়ে করার চেষ্টা করছিল। কিন্তু ছেলেরা তার কথা আমলে নেয়নি। দ্বিতীয় বিয়ে করলে সম্পত্তি ভাগ হয়ে যাবে, এই আশঙ্কা থেকেই স্বপন তার বাবাকে হত্যা করেন। 

ইত্তেফাক/এসজেড

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

উখিয়ার পালংখালী থেকে ভুয়া চিকিৎসক গ্রেফতার 

সুন্দরবনের কটকায় হরিণের মাংসসহ শিকারি আটক

রাজশাহীতে বিএনপির সমাবেশে সাংবাদিকদের ওপর হামলা 

বাগমারায় শ্রমিক সংকট বেড়েই চলেছে

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

মাদককাণ্ডে চাকরি হারানো কনস্টেবল এখন ভুয়া পুলিশ কর্মকর্তা!

রাজশাহীর ‘সেলিব্রেটি গ্যালারি’ যেন খ্যাতনামাদের মিলনমেলা

লোহাগাড়ায় পুলিশের কবজি বিচ্ছিন্ন: মূল আসামি গুলিবিদ্ধ অবস্থায় গ্রেফতার

সেন্টমার্টিন সমুদ্র এলাকায় মিললো ৩ লাখ ইয়াবা