বৃহস্পতিবার, ২৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৪ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

আগামীর বাংলাদেশ বিনির্মাণের ভাবনা নিয়ে 'নেক্সট ফিফটি'র যাত্রা শুরু

আপডেট : ২৩ মার্চ ২০২২, ১১:০৩

বাংলাদেশ নিজেদের নানা উন্নয়নকল্পে মাথা উঁচু করে দাঁড়িয়েছে বিশ্বের বুকে। এগিয়ে চলার এই গতি অব্যাহত রেখে আগামী পঞ্চাশ বছরের পরিক্রমা কেমন হবে, তা ভাবছেন দেশের একদল খ্যাতনামা স্থপতি, পরিকল্পনাবিদ  ও গবেষক। শাহ্ সিমেন্টের সঙ্গে স্থপতি, স্থাপত্যের শিক্ষার্থী ও সৃজনশীলদের প্ল্যাটফর্ম কনটেক্সট বিডি  এবং ওপেন স্টুডিও যৌথভাবে আয়োজন করেছে 'নেক্সট ৫০' । মূলত আগামীর বাংলাদেশকে নিয়ে গবেষণা ও কাজ করার একটি সমন্বিত মাধ্যম হিসেবে কাজ করবে তারা— যার আনুষ্ঠানিক সূচনা নেক্সট ফিফটি - কানেক্টিং বাংলাদেশ এর মাধ্যমে।
 
দেশের ভবিষ্যৎ স্থাপত্য ও পরিকল্পনার ধারণা নিয়ে গবেষণা করছেন এর সাথে সংশ্লিষ্টরা। এধরনের রূপকল্প তৈরির কাজ এটিই প্রথম। এতে দেশবিদেশের স্থপতিদের ভাবনাগুলো একটি বই আকারে সংকলন করা হচ্ছে। পাশাপাছি থাকছে ওয়েবসাইট ও বিভিন্ন অংশগ্রহণমূলক উদ্যোগ। বিশ্বের ১৩টি দেশ থেকে বিশেষজ্ঞরা এই আয়োজনে অংশ নিয়েছেন। বাংলাদেশের ১৪টি এবং বিভিন্ন দেশের ২৯টি বিশ্ববিদ্যালয় সহ ৮টি স্থানীয় ও আন্তর্জাতিক সংস্থা থেকে স্থপতি ও গবেষকরা তাদের প্রবন্ধ জমা দিয়েছেন নেক্সট ফিফটির প্রথম প্রকাশনায়। 

দেশের দেড় শতাধিক স্থপতি ও পরিকল্পনাবিদদের নিয়ে সোমবার (২১ মার্চ) রাজধানীর একটি পাঁচতারকা হোটেলে এক জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে নেক্সট ফিফটির আনুষ্ঠানিক সূচনা ও বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করা হয়। অনুষ্ঠানে শাহ্‌ সিমেন্টের পক্ষে আবুল খায়ের গ্রুপের ব্র্যান্ড মার্কেটিং ডিরেক্টর নওশাদ চৌধুরী সম্মিলিতভাবে এই প্রয়াসগুলো নিয়ে কাজ করতে সবাইকে আহ্বান জানান।

অনুষ্ঠানে আসা অতিথিরা। ছবি: তানভীর আহাম্মেদ/ইত্তেফাক

নেক্সট ফিফটি কালেকটিভ ফিউচার প্রকাশনার এডিটরিয়াল প্যানেলের প্রধান ও স্থপতি অধ্যাপক ড. ফুয়াদ মল্লিকের সঞ্চালনায় আলোচনায় অংশ নেন অধ্যাপক আবু সায়ীদ এম আহমেদ, অধ্যাপক ড. জয়নাব ফারুকী আলী, অধ্যাপক হারুন অর রশিদ, অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান, অধ্যাপক ইশরাত ইসলাম ও অধ্যাপক  জাকিউল ইসলাম। তাদের আলোচনায় আগামীর বাংলাদেশ বিনির্মাণে টেকসই ব্যবস্থাপনা ও পরিবেশগত দিকগুলোর পাশাপাশি ঐতিহ্য সংরক্ষণের দিকগুলোও প্রাধান্য পায়। পাশাপাশি নগর ও অঞ্চলের পরিকল্পনার নানা সংকট, সীমাবদ্ধতা, সম্ভাবনা ও স্থাপত্য বিষয়ে মানুষের মাঝে সচেতনতা তৈরি নিয়েও কথা বলেন তারা। এসময় জুমের মাধ্যমে দেশের বাইরে থেকেও স্থপতি ও গবেষকরা অনুষ্ঠানে অংশ নেন।

স্থপতি ও পরিকল্পনাবিদ ইকবাল হাবিব ও স্থপতি মামনুন মোরশেদ চৌধুরীও অনুষ্ঠানে বক্তব্য প্রদান করেন। পরে কন্টেক্সট বিডি আয়োজিত 'ভিজ্যুয়ালাইজিং ফিউচার বাংলাদেশ' প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

অনুষ্ঠান শেষে যুক্তরাজ্যভিত্তিক গবেষণা প্রতিষ্ঠান ওপেন স্টুডিও’র স্থপতি ড. তানজিল শফিক ও কনটেক্সট বিডি’র পক্ষে স্থপতি সাইমুম কবির তাদের পরবর্তী পরিকল্পনাগুলোর কথা তুলে ধরেন। বছরব্যাপী 'নেক্সট ৫০' আউটরিচ প্রোগ্রামে অনলাইন ও অফলাইনে বিভিন্ন প্রতিযোগিতা, সিম্পোজিয়াম, অ্যাওয়ার্ড, এক্সিবিশন অন্তর্ভুক্ত থাকবে। পুরো আয়োজনটিকে পৃষ্ঠপোষকতা করছে শাহ্‌ সিমেন্ট।

ইত্তেফাক/এসটিএম