সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

'মার্কিন গোয়েন্দা তথ্যে রুশ জেনারেল হত্যা', অস্বীকার পেন্টাগনের 

আপডেট : ০৬ মে ২০২২, ২১:৫২

মার্কিন প্রতিরক্ষা বিভাগ বৃহস্পতিবার যুদ্ধক্ষেত্রে ইউক্রেন বাহিনীর কর্তৃক হত্যায় রুশ জেনারেলদের অবস্থান সম্পর্কে গোয়েন্দা তথ্য সরবরাহ করার কথা অস্বীকার করেছে।

ইউক্রেনের সামরিক বাহিনীর প্রতি মার্কিন সমর্থনের বিষয়ে নিউইয়র্ক টাইমসের একটি বিস্ফোরক প্রতিবেদনের প্রতিক্রিয়ায়, পেন্টাগনের মুখপাত্র জন কিরবি বলেছেন, এটি সত্য যে ইউক্রেনীয়দের তাদের দেশকে রক্ষা করতে সহায়তা করার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র কিয়েভের বাহিনীকে সামরিক বুদ্ধিমত্তা সরবরাহ করে। 

কিরবি বলেন, আমরা যুদ্ধক্ষেত্রে সিনিয়র সামরিক নেতাদের অবস্থান সম্পর্কে  গোয়েন্দা তথ্য প্রদান করি নাই বা ইউক্রেনের সামরিক বাহিনীর লক্ষ্যবস্তু করার সিদ্ধান্তে অংশগ্রহণ করি নাই।

নিউ ইয়র্ক টাইমস বুধবার রাতে এ  রিপোর্টে বলেছে, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের দেওয়া  গোয়েন্দা তথ্য মস্কোর হামলার পর থেকে ইউক্রেনের সামরিক বাহিনীকে লক্ষ্যবস্তু করায় সহায়তা করেছে এবং বেশ কয়েকজন রুশ জেনারেলকে হত্যা করায় সহযোগিতা করেছে।

নামবিহীন সিনিয়র মার্কিন কর্মকর্তাদের উদ্ধৃত করে, সংবাদপত্রটি বলেছে, ইউক্রেন বাহিনীর দ্বারা নিহত প্রায় এক ডজন রুশ জেনারেলের মধ্যে অনেকেই মার্কিন  গোয়েন্দাদের সহায়তায় লক্ষ্যবস্তুতে পরিণত হয়েছিল। 

ইউক্রেন বাহিনী  রুশ কমান্ড অবস্থানগুলিতে আক্রমণ করার ক্ষেত্রে বিশেষভাবে সফল হয়েছে, এবং রিপোর্ট অনুসারে, গত সপ্তাহে ডনবাস অঞ্চলে সামনের লাইনের কাছাকাছি একটি অবস্থানে আঘাত হানার কাছাকাছি আসে যেখানে রুশ শীর্ষ  জেনারেল ভ্যালেরি  গেরাসিমভ সৈন্যদের পরিদর্শন করছেন বলে মনে করা হয়।

পেন্টাগনের মুখপাত্র জন কিরবি বলেন, ইউক্রেন কোনো রুশ নেতাকে টার্গেট করবে কি করবে না সেটা তাদের নিজস্ব সিদ্ধান্ত । তিনি বলেন,‘ইউক্রেন এমন তথ্য একত্রিত করে যা আমরা এবং অন্যান্য অংশীদাররা বুদ্ধিমত্তার সাথে সরবরাহ করে যা তারা নিজেরাই যুদ্ধক্ষেত্রে সংগ্রহ করছে।’ 

হোয়াইট হাউস ন্যাশনাল সিকিউরিটি কাউন্সিল নিউইয়র্ক টাইমসের প্রতিবেদনকে ‘দায়িত্বজ্ঞানহীন’ বলে নিন্দা করেছে।

এনএসসির মুখপাত্র অ্যাড্রিয়েন ওয়াটসন বলেছেন, ‘ইউক্রেনীয়দের তাদের দেশ রক্ষায় সহায়তা করার জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র যুদ্ধক্ষেত্রের গোয়েন্দা তথ্য সরবরাহ করে। আমরা রাশিয়ান জেনারেলদের হত্যা করার উদ্দেশ্যে গোয়েন্দা তথ্য প্রদান করি নাই।’

ওয়াশিংটন ইউক্রেনে বিলিয়ন ডলার মূল্যের সামরিক সরঞ্জাম এবং যুদ্ধাস্ত্র সরবরাহ করছে এবং তাদের বাহিনীকে কীভাবে পরিচালনা করতে হবে সে সম্পর্কে প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। কিয়েভকে উপগ্রহ, ইলেকট্রনিক নজরদারি অপারেশন এবং অন্যান্য  গোয়েন্দা সূত্র থেকে সংগৃহীত তথ্য সরবরাহ করছে।

ইউক্রেনের প্রতি ওয়াশিংটনের সমর্থন কেবল বেড়েছে, এবং আরও স্পষ্ট হয়ে উঠেছে। রাশিয়ানরা ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে আগ্রাসন চালানোর পর শুরুতে যুক্তরাষ্ট্র বলেছিল যে তারা শুধুমাত্র ইউক্রেনকে টিকে থাকতে সাহায্য করতে চায়। কিন্তু এখন ওয়াশিংটন বলছে, যুদ্ধে তাদের লক্ষ্য রাশিয়াকে দীর্ঘমেয়াদে দুর্বল করা।

মার্কিন প্রতিরক্ষা সচিব লয়েড অস্টিন এপ্রিলের শেষের দিকে কিয়েভ সফরের পরে বলেন, ‘আমরা দেখতে চাই  যে রাশিয়া এমনভাবে দুর্বল হয়ে পড়েছে যে এটি ইউক্রেন আক্রমণ করার ক্ষেত্রে যে ধরনের কাজ করেছে তা করতে পারছে না।’  

ইত্তেফাক/এসআর

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

ইউক্রেনের শরণার্থী সুন্দরীর প্রেমে পড়ে স্ত্রী-সন্তান ত্যাগ 

খাদ্যশস্য রফতানি আটকে দিয়েছে রাশিয়া: জেলেনস্কি

বিশেষ সংবাদ

ইউক্রেন যুদ্ধ কতটা ভোগাবে বিশ্বকে 

যুদ্ধবিরতির আহ্বান প্রত্যাখ্যান ইউক্রেনের

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

ডনবাসে ইউক্রেনের বাহিনীর ওপর রুশ বিমান হামলা 

রাশিয়াকে বিচ্ছিন্ন করতে মোদির সঙ্গে একান্ত দেখা করবেন বাইডেন

পূর্বের পরিস্থিতি অত্যন্ত 'ভয়াবহ': জেলেনস্কি 

৪ দিক থেকে সেভেরোদোনেতস্কে রুশ হামলা: গভর্নর