শনিবার, ২৮ মে ২০২২, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

ফিলিপাইনের নির্বাচন

মিথ্যা তথ্য ছড়ানোর জন্য রাজনীতিবিদরা আলাদা লোক নিয়োগ দেন

আপডেট : ০৮ মে ২০২২, ১০:১৭

আগামীকাল সোমবার ফিলিপাইনের ভোটাররা জাতীয় নির্বাচনে ভোট প্রদানের মধ্য দিয়ে তাদের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত করবে। কিন্তু তার আগে আলোচনায় সোশ্যাল মিডিয়া ও ডিজিটাল মাধ্যম ব্যবহার করে মিথ্যা তথ্য ছড়িয়ে ভোটারদের প্রভাবিত করার অভিযোগ। খবর প্রকাশ করেছে বিবিসি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, সোশ্যাল মিডিয়ায় রাজনীতিবিদদের পক্ষ হয়ে মিথ্যা তথ্য ছড়িয়ে থাকেন জন (ছদ্মনাম)। তার নিরাপত্তার স্বার্থেই আসল নাম প্রকাশ করছে না বিবিসি। জন এমন একটি শিল্পের অংশ, যা ফিলিপাইনের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের জন্য গুরুত্বপূর্ণ হতে পারে৷

জন বলেন, ‘আমি নিজেকে একজন ট্রোল সৃষ্টিকারী মনে করি। অথবা রাজনৈতিকভাবে বলতে গেলে, আমি একজন সোশ্যাল মিডিয়া মার্কেটিং পরামর্শদাতা।’ তিনি বলেন যে, তিনি বেশিরভাগ দিন সকাল ১০টা থেকে বিকাল ৩টা পর্যন্ত কাজ করেন। তার ক্লায়েন্টরা রাজনীতিবিদ এবং তাদের প্রচারণার সুবিধার জন্য শতাধিক ফেসবুক পেজ এবং ভুয়া প্রোফাইল পরিচালনা করছেন তিনি।

এই ব্যক্তি আরও জানান, তার ক্লায়েন্টদের মধ্যে গভর্নর, কংগ্রেসম্যান এবং মেয়রও রয়েছে। সোমবার (৯ মে) অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া ভোট ২০১৬ সালে রদ্রিগো দুতের্তের বিজয়ের পর এটিই প্রথম প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। সমালোচকরা বলছেন, সেটিও মিথ্যা খবরের ঢেউয়ের মাধ্যমে জিতেছিলেন দুতের্তে। নির্বাচন পর্যবেক্ষক ও বিশেষজ্ঞদের মতে, তারপর থেকে পরিস্থিতির উন্নতি হয়নি। উল্টো এটি আরও খারাপ হতে পারে।

জন এই মিথ্য তথ্য ইকোসিস্টেমের অংশ। তিনি বলেন, তার প্রায় ৩০টি ট্রল পেজ রয়েছে। সেগুলোর মাধ্যমে মিথ্যা তথ্য ছড়িয়ে ক্লায়েন্টদের জন্য সমর্থন বাড়ানো হয়। তিনি বলেন, ‘২০১৩ সালে আমি যে প্রদেশগুলো পরিচালনা করেছিলাম, সেগুলোর একটিতে আমরা মিথ্যা খবর ছড়িয়ে দেই।’

ইত্তেফাক/টিএ

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

পাকিস্তানে নারীরা বিচার পান না

জাতিসংঘের আহ্বান প্রত্যাখ্যান করলো ‘আফগান সরকার’

ইউক্রেনে মৃত্যুদণ্ডের মুখে ব্রিটিশ ভাড়াটে যোদ্ধা

ইরানে বিক্ষোভ অব্যাহত, টিয়ার গ্যাস ছুড়ে ছত্রভঙ্গ

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

ইমরান খানের আজাদি মার্চে পাক সরকারের খরচ ১৪৯ মিলিয়ন রুপি

ইউক্রেনের জন্য ড্রোন কিনতে অর্থ সংগ্রহ করছে লিথুনিয়ার জনগণ

চীন আন্তর্জাতিক শৃঙ্খলার জন্য দীর্ঘমেয়াদি চ্যালেঞ্জ: মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী

চুক্তি নয়, রক্তপাত এড়াতেই আজাদি মার্চ বাতিল করেছি: ইমরান খান