সোমবার, ২৩ মে ২০২২, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

সমুদ্রে অবমুক্ত হলো কাছিমের ৩৫০ বাচ্চা

আপডেট : ১১ মে ২০২২, ২২:২৫

কক্সবাজারের টেকনাফ সমুদ্র সৈকতে ৩৫০টি কাছিমের বাচ্চাকে উপকূল এলাকায় অবমুক্ত করা হয়েছে। 

বুধবার (১১ মে) বিকেলে টেকনাফের বাহারছড়া উত্তর শিলখালী সাগর পয়েন্টে কাছিমগুলোকে অবমুক্ত করা হয়। দাতা সংস্থা কোডেকের হ্যাচারিতে এসব কাছিমের বাচ্চা জন্ম নেয়।

শিলখালী রেঞ্জের বন কর্মকর্তা শফিউল আলম বলেন, সামুদ্রিক কচ্ছপের ডিম সংরক্ষণ ও প্রজনন প্রক্রিয়ার তদারকি করে আসছে দাতা সংস্থা কোডেকের নেচার অ্যান্ড লাইফ প্রকল্প। তাদের হ্যাচারিতে জন্ম নিয়েছে এসব কাছিমের বাচ্চা। তাদের কাছে আরও অন্তত ২ হাজার ডিম সংরক্ষিত আছে।

দীর্ঘদিন ধরে ইউএসআইডির আর্থিক সহায়তায় দাতা সংস্থা কোডেক তাদের নিজস্ব প্রকল্প নেচার অ্যান্ড লাইফের সরাসরি তত্ত্বাবধানে হ্যাচারিতে কাছিমের ডিম সংরক্ষণ করে আসছে। সেখানে জন্ম নিচ্ছে এসব বাচ্চা। পরে তা সাগরে অবমুক্ত করা হয়।

কোডেক সূত্র জানায়, নেচার অ্যান্ড লাইফ প্রকল্পের নৈশপ্রহরী নুরুল আমিন রাতে সমুদ্র চরে ঘুরে বেড়ান। সামুদ্রিক মা কাছিম যখন তীরে ডিম দিতে আসে, তখন তিনি দীর্ঘ সময় অপেক্ষা করে কাছিমের ডিম সংগ্রহ করেন। এরপর এসব ডিম হ্যাচারিতে সংরক্ষণ করা হয়। সেখানে জন্ম নিচ্ছে এসব বাচ্চা। একটি নির্দিষ্ট সময়ের পর সেগুলোকে আনুষ্ঠানিকভাবে সাগরে অবমুক্ত করা হয়।

পরিবেশ অধিদপ্তর কক্সবাজারের সহকারী পরিচালক নাজমুল হুদা বলেন, কাছিম ময়লা-আবর্জনা খেয়ে সমুদ্রকে পরিষ্কার রাখে। সমুদ্রের জীববৈচিত্র্য সংরক্ষণে কোডেকের এই উদ্যোগ প্রশংসার দাবি রাখে।

এসময় কোডেকের ন্যাচার অ্যান্ড লাইফ প্রকল্পের ডেপুটি প্রজেক্ট ডিরেক্টর নারায়ণ কান্তি দাশ, এনআরএম ম্যানেজার অসীম বড়ুয়া, ন্যাচার অ্যান্ড লাইফের সাইট কো-অর্ডিনেটর শরিফুল আলমসহ সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন।

ইত্তেফাক/এমএএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করলেন ইউএনএইচসিআর প্রধান ফিলিপ্পো গ্রান্ডি

যুগ্ম সচিবের গাড়ির ধাক্কায় পথচারী নিহত

উখিয়ায় অস্ত্র ও গোলাবারুদসহ যুবক গ্রেফতার 

সেন্টমার্টিন সমুদ্র এলাকায় মিললো ৩ লাখ ইয়াবা

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

রয়েল টিউলিপে হোটেল থেকে পর্যটক তরুণীর লাশ উদ্ধার

নিজ বন্দুকের গুলিতে ফরেস্ট গার্ড নিহত 

কক্সবাজারে ‘অতিরিক্ত মদপানে তরুণীর মৃত্যু’ : ২ বন্ধু আটক

কক্সবাজার ঘিরে মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়ন করছে সরকার: প্রধানমন্ত্রী