রোববার, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২২ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

অর্থপাচার প্রতিরোধ ও পাচার হওয়া অর্থ ফিরিয়ে আনার দাবি টিআইবির 

আপডেট : ৩০ মে ২০২২, ১৯:৫৯

জাতীয় ও আন্তর্জাতিক আইনের কার্যকর প্রয়োগের মাধ্যমে অর্থপাচার প্রতিরোধ ও পাচার হওয়া অর্থ দেশে ফিরিয়ে আনার দাবি জানিয়েছে ট্রান্সপারেন্সি ইন্টারন্যাশনাল বাংলাদেশ (টিআইবি)। সোমবার (৩০ মে) এক বিবৃতিতে এ দাবি জানায় সংস্থাটি।

বিবৃতিতে টিআইবির নির্বাহী পরিচালক ড. ইফতেখারুজ্জামান বলেন, এভাবে রেমিট্যান্স পাঠানোর সুযোগে অর্থপাচারকারীরা প্রবাসীদের মতোই আড়াই শতাংশ প্রণোদনার সুযোগ নিতে পারে। 

টিআইবির নির্বাহী পরিচালক বলেন, বাজেটে বারবার কালো টাকা সাদা করার সুযোগ দেওয়া হলেও তাতে রাষ্ট্রের উল্লেখযোগ্য সুফল অর্জন হয়নি। 

গত ২৩ মে রেমিট্যান্সে প্রণোদনা পেতে শর্ত শিথিল করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। এর আগে ৫ হাজার থেকে ৫ লাখ টাকার বেশি রেমিট্যান্স পাঠাতে গেলে রেমিটারকে (অর্থপ্রেরক) বিদেশি এক্সচেঞ্জ হাউসের কাছে বিস্তারিত কাগজপত্রাদি জমা দেওয়ার বাধ্যবাধকতা ছিল। এখন থেকে সেই বাধ্যবাধকতা প্রত্যাহার করা হয়েছে। এর ফলে দেশে সহজে রেমিট্যান্স পাঠাতে পারবেন বিশ্বের বিভিন্ন দেশে কর্মরত প্রবাসী বাংলাদেশিরা। বৈধ উপায়ে দেশে রেমিট্যান্স পাঠালে ২ দশমিক ৫০ শতাংশ রেমিট্যান্স প্রণোদনা/নগদ সহায়তা প্রযোজ্য হবে।
 

 

ইত্তেফাক/ইউবি