বুধবার, ০৫ অক্টোবর ২০২২, ২০ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

আমার তো ‘সরকারি গুন্ডা’ আছে: আওয়ামী লীগের চেয়ারম্যান প্রার্থী

আপডেট : ৩১ মে ২০২২, ২২:২৮

‘আমি সরকারি দলের লোক, আমার তো সরকারি গুন্ডা আছে। আছে না? লাইসেন্সধারী। এরা কি এনাদের (প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী) কাজ করবে, না আমি নির্দেশ দিলে আমার কাজ করবে?’- সোমবার (৩০ মে) বিকালে এক নির্বাচনি সভায় বক্তব্যে প্রতিপক্ষকে এই হুমকি দেন চট্টগ্রামের বাঁশখালী উপজেলার পুঁইছড়ি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী জাকের হোসেন চৌধুরী  (বাচ্চু)।

এ সময় মঞ্চে উপস্থিত থাকা চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের শ্রম বিষয়ক সম্পাদক খোরশেদ আলমও হাতে নেড়ে তার বক্তব্যের প্রতি সমর্থন জানান। জাকের হোসেনের বক্তব্যের একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে ফেসবুকে। ওই ভিডিওতে এলাকার পরিস্থিতি নিয়েও নানা কথা বলেছেন তিনি।

ভিডিওতে জাকের হোসেন চৌধুরী বাচ্চুকে বলতে শোনা যায়, ‘স্বতঃস্ফূর্তভাবে ভোট দিতে পারবেন। এখানে যত বড় গুণ্ডা হোক, যত বড় পয়সাওয়ালা হোক। বিন্দুমাত্র বিশৃঙ্খলা করতে পারবে না। আমি সরকারি দলের লোক। আমার তো সরকারি গুণ্ডা আছে। আছে না? লাইসেন্সধারী! এরা কী এদের কাজ করবে? নাকি আমি নির্দেশ দিলে আমার কাজ করবে? এখানে এত হুমকি-ধমকি ভয়টয় আপনারা করবেন না। এগুলো আপনারা জানেন। আপনারা ভালোভাবে জানেন, এই এলাকায়, এই প্রেমবাজারে এক সময় ডাকাতের অভয়ারণ্য ছিল। ডাকাতরা এমনভাবে গর্জন করতো। রাতে ডাকাতি করে দিনের বেলায় এখানে জুয়া খেলা দিতো, এরা আওয়ামী লীগের নামধারী ছিল বলে।’

এর আগে বাঁশখালীর চাম্বল ইউনিয়নের নৌকার প্রার্থী ও বর্তমান চেয়ারম্যান মুজিবুল হক চৌধুরী নির্বাচন ও ইভিএম নিয়ে বক্তব্য দিয়ে সমালোচনার মুখে পড়েন।

জানতে চাইলে চেয়ারম্যান প্রার্থী জাকের হোসেন চৌধুরী বাচ্চু বলেন, ‘ওখানে আমি এরকম বলি নাই। আমার বক্তব্যকে বিকৃত করেছে। প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী আমার সঙ্গে গুণ্ডামি করবে বলতেছে তো। ওরা ভোট নিয়ে নেবে; আমার এজেন্ট দিতে দেবে না। এ জন্য এটার জবাবে আমি বলেছি, গুণ্ডামি করলে তো আমিই করতে পারবো। কারণ, আমি সরকারি লোক। বেসরকারি লোকের গুণ্ডামি করার সুযোগ আছে? বাহাদুরি করার সুযোগ আছে?’

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বাঁশখালী উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফয়সাল আলম বলেন, ‘বক্তব্যটা আপত্তিকর ও আচরণবিধির লঙ্ঘন। তার বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নিয়ে গণমাধ্যমকে জানাব।’

জাকের হোসেন চৌধুরী আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠন কৃষক লীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য।

ইত্তেফাক/এএএম