বৃহস্পতিবার, ১৮ আগস্ট ২০২২, ২ ভাদ্র ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

দেশে কোনো দুর্ভিক্ষ হবে না: কৃষিমন্ত্রী  

আপডেট : ০৩ আগস্ট ২০২২, ১৭:৪৫

কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, ‘বর্তমান বিশ্ব পরিস্থিতিতে দেশের মানুষকে একটু কষ্ট করতে হবে, তবে হাহাকার, চরম সংকট, দুর্ভিক্ষ হবে না। বিএনপি এই সুযোগে রাজনৈতিক ফায়দা লোটার চেষ্টা করছে।’

বুধবার (৩ আগস্ট) সকাল সাড়ে ১১টায় নগরীর জেলা শিল্পকলা একাডেমি মিলনায়তনে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউট আয়োজিত কর্মশালায় এসব কথা বলেন তিনি। 

মন্ত্রী বলেন, ‘রাশিয়া ও ইউক্রেনের যুদ্ধ বন্ধ হলে আন্তর্জাতিক বাজারে সারের দাম কমলে বাংলাদেশেও সারের দাম কমবে। সারের দাম বাড়ানোয় খাদ্য উৎপাদনে কোনো নেতিবাচক প্রভাব পড়বে না। গত দুই-আড়াই বছর যাবৎ এ বিষয়টি নিয়ে চিন্তা-ভাবনা চলছিল। বিশ্ব বাজারে এক কেজি সারের দাম ৮১ টাকা। সেই সার ভর্তুকি দিয়ে দেশে ১৬ টাকায় বিক্রি হতো। কৃষকরা ইউরিয়া সার বেশি ব্যবহার করে। সামগ্রিক অর্থনীতিতে ভারসাম্য আনার জন্য সারের দাম কিছুটা বাড়ানো হয়েছে। ড্যাপ ব্যবহার করলে খাদ্য উৎপাদনে কোনো নেতিবাচক প্রভাব পড়বে না।’ 

কৃষিমন্ত্রী বলেন, ‘আন্তর্জাতিক পর্যায়ে অর্থনীতিতে সমস্যা তৈরি হয়েছে। এই সংকটে ঘোলা পানিতে রাজনৈতিক ফায়দা হাসিলের চেষ্টা করছে বিএনপি। তাদের লক্ষ্য রাজনৈতিক লাভ নেওয়া। বাংলাদেশের মানুষ খুব সচেতন। বিএনপি আহাম্মকের স্বর্গে বাস করছে। তাদের দুর্নীতির কারণে দেশের অর্থনীতি ভেঙে পড়েছিল। বিএনপি যা বলছে বর্তমানে দেশের এমন কোনো পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়নি। বিশ্বের উন্নত দেশগুলোতেও মুদ্রাস্ফীতি হচ্ছে। তাই দেশের মানুষকে একটু কষ্ট সহ্য করতে হবে।’ 

কর্মশালায় কৃষি সচিব মো. সায়েদুর ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। এছাড়া অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বরিশাল সিটি করপোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আবদুল্লাহ, বিভাগীয় কমিশনার মো. আমিন উল আহসান, জেলা প্রশাসক জসীম উদ্দীন হায়দারসহ বিভিন্ন স্তরের সরকারি কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা।

ইত্তেফাক/মাহি