শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৫ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

পোরস ছোট করতে করনীয়

আপডেট : ১০ আগস্ট ২০২২, ১৯:৪২

আমাদের ত্বকে অসংখ্য ছোট ছোট ছিদ্র থাকে। এগুলো ত্বকের শ্বাসক্রিয়া চালু রাখে। ইংরেজিতে এদের পোরস বলা হয়। খালি চোখে পোরস দেখা সম্ভব না। কিন্তু অতিরিক্ত তৈলাক্ত ত্বক কিংবা যাদের ত্বকে সিবাম হয় তাদের 'পোরস' বাইরে থেকে দেখা যায়। এই সমস্যা আরও জটিল হয়ে ওঠে যখন খাওয়াদাওয়া কিংবা নিজের সুস্থতার দিকে মনোযোগ কম থাকে। ফলে ত্বকে অসংখ্য সিবাম তৈরি হয় এবং পোরস আরও বেশি করে দেখা যায়। বাড়তি সিবাম থেকেই ব্ল্যাকহেড, ব্রণ ও ফুসকুঁড়ির মতো সমস্যাও দেখা যায়। 

বোঝা যাচ্ছে এই সমস্যা বেশিদিন থাকলে আপনার ত্বক আলগা হতে শুরু করবে। তাতে বয়সের বলিরেখা দেখা দেয়। সেজন্যে সতর্ক হওয়া জরুরি। পোরস এড়ানোর জন্যে নানা অভ্যাস গড়ে নিতে হয়। কিন্তু চলমান সমস্যা দূর করার কোনো উপায় আছে কি? আছে তো বটেই। সেগুলোই আজ জানাবো:  

অ্যালোভেরা জেল ব্যবহার করুন

অ্যালোভেরা ত্বক যেমন আর্দ্র থাকবে তেমনই পোরসের আকারও ছোট হতে শুরু করবে

সকাল ও সন্ধ্যা নিয়ম করে তাজা অ্যালোভেরার জুস মাসাজ করুন। সেই জুস ত্বকে প্রায় দশ মিনিট রেখে দিন। এভাবে ত্বক যেমন আর্দ্র থাকবে তেমনই পোরসের আকারও ছোট হতে শুরু করবে। দশ মিনিট পর মুখ ধুয়ে ফেলুন।  

অ্যাপল সাইডার ভিনেগার

অ্যাপল সাইডার ভিনেগার নিয়মিত টোনার হিসেবে ব্যবহারে ত্বকের পোরস ছোট হয়

ফিল্টার করা পানি ও অ্যাপল সাইডার ভিনেগার মিশিয়ে নিন। তারপর সেই মিশ্রণ তুলোয় লাগিয়ে ত্বকে লাগান। এবার মিশ্রণটি স্বাভাবিকভাবে শুকোতে দিন। এই মিশ্রণকে নিয়মিত টোনার হিসেবে ব্যবহার করুন। তাতে ত্বকের পোরস ছোট হতে শুরু করবে।

কলার খোসা

কলার খোসা ত্বকের পোরস ছোট করে

কলা খেয়ে খোসা ফেলে দেওয়ার প্রয়োজন নেই। কলার খোসা ভালোমতো ধুয়ে নিন ও আলতো হাতে ঘষুন। মাখা শেষে পানি দিয়ে মুখে ঝাপটা দিন। মুখ পরিষ্কার করে ক্রিম লাগান। একদিন বাদ দিয়ে দিয়ে এই পদ্ধতিতে ত্বকের যত্ন নিন। এতে পোরস ছোট হবে।  

বেসন, হলুদ ও দইয়ের প্যাক 

তিন উপাদানে তৈরি এই মাস্ক পোরস ছোট করে

বেসন, হলুদ ও দই একসঙ্গে মিশিয়ে প্যাক বানান। সেই প্যাকটি শুকিয়ে গেলেই তুলে ফেলুন। কিছুদিন পর পোরস ছোট হবে ও ত্বকের হারানো জেল্লাও ফিরে আসবে।

ডিমের সাদা অংশ দিয়ে মাস্ক বানিয়ে নিন 

ডিমের সাদা অংশ ব্যবহারেও পাবেন সুফল

ওটমিল, ডিমের সাদা অংশ ও সামান্য লেবুর রস মিশিয়ে ফেস মাস্ক বানানো যায়। সেই মাস্ক মুখে লাগিয়ে দশ মিনিট রেখে দিন। শুকিয়ে গেলে তা তুলে নিন। তারপর ময়েশ্চারাইজার লাগিয়ে নিন। এভাবে পোরস ছোট হবে। 

ইত্তেফাক/আরএম

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন