শুক্রবার, ০৭ অক্টোবর ২০২২, ২২ আশ্বিন ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

ইউরোপের বৃহত্তম পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্রে হামলা

পরস্পরকে দুষছে ইউক্রেন-রাশিয়া  

আপডেট : ১৪ আগস্ট ২০২২, ১৬:১০

ইউরোপের বৃহত্তম পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের চারপাশে গোলাগুলির জন্য একে অপরকে দোষারোপ করছে কিয়েভ ও মস্কো। বিদ্যুৎকেন্দ্রটি রাশিয়ার নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। গত সপ্তাহে বারবার হামলার কবলে পড়েছে বলে জানা গেছে। আল-জাজিরার এক প্রতিবেদনে এই তথ্য প্রকাশ করা হয়।

দক্ষিণ-পূর্ব ইউক্রেনের জাপোরিঝিয়া প্ল্যান্টটি চলতি বছরের মার্চ মাস থেকে রুশ বাহিনীর দখলে রয়েছে। ইউক্রেন অভিযোগ করেছে, এই বিদ্যুৎ কেন্দ্রে শত শত সৈন্য ও অস্ত্র মজুত করছে রাশিয়া।  

ইউরোপের সর্ববৃহৎ পরমাণু কেন্দ্র জাপোরিঝজিয়ায় ইউক্রেনীয় সেনারা হামলা চালাচ্ছে বলে অভিযোগ করেছে রাশিয়া। রুশ সরকারের পক্ষ থেকে সতর্ক করে বলা হয়েছে, এই ঘটনা ইউরোপের জন্য বিপর্যয়কর পরিণতির কারণ হতে পারে।

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জেলেনস্কি শনিবার (১৩ আগস্ট) টেলিভিশনে দেওয়া এক ভাষণে বলেন, রাশিয়া পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ভূখণ্ডে গোলাবর্ষণের মাধ্যমে ক্রমাগত উস্কানির ব্যবস্থা করছে।  ইউক্রেন ও সমগ্র মুক্ত বিশ্বকে আরও ব্ল্যাকমেইল করার জন্য তাদের অতিরিক্ত বাহিনীকে এই দিকে আনার চেষ্টা করছে। 

গত ২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে সামরিক অভিযানের ঘোষণা দেন রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন। এরপর আজ পর্যন্ত টানা ১৭২ দিনের মতো চলছে দেশ দুইটির সংঘাত। এতে দুই পক্ষের বহু হতাহতের খবর পাওয়া যাচ্ছে। তবে যুদ্ধ বন্ধে এখন পর্যন্ত কোনো লক্ষণ নেই। উলটো পূর্ব ইউক্রেনে দেশ দুইটির মধ্যে সংঘাত আরও বেড়েছে।

ইত্তেফাক/এসআর