রোববার, ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২২ মাঘ ১৪২৯
দৈনিক ইত্তেফাক

৫৭ জেলা পরিষদে একযোগে ভোট চলছে

আপডেট : ১৭ অক্টোবর ২০২২, ১০:৪৬

ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনে (ইভিএম) শুরু হয়েছে জেলা পরিষদ নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। সিসিটিভি ক্যামেরার মাধ্যমে সরাসরি নির্বাচন মনিটরিং করছে ইসি।

সোমবার (১৭ অক্টোবর) সকাল ৯টা থেকে একযোগে স্থানীয় সরকারের সবচেয়ে বড় এই নির্বাচনের ভোট শুরু হয়। দেশের ৫৭টি জেলা পরিষদে দুপুর ২টা পর্যন্ত চলবে ভোটগ্রহণ।

সিটি করপোরেশন থেকে শুরু করে উপজেলা পরিষদ, পৌরসভা ও ইউনিয়ন পরিষদের জনপ্রতিনিধিরা এই নির্বাচনের ভোটার। মূলত তারাই ভোট দিয়ে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও সদস্যদের নির্বাচিত করবেন।

নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে ৯২ জন, সদস্য পদে ১ হাজার ৪৮৫ জন ও সংরক্ষিত নারী সদস্য পদে ৬০৩ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। মোট ভোটার রয়েছেন ৬০ হাজার ৮৬৬ জন।

এর আগে, শনিবার (১৫ অক্টোবর) দিবাগত মধ্যরাতে শেষ হয় নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা। এরই মধ্যে আওয়ামী লীগ সমর্থিত ২৭ জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। এছাড়া সাধারণ সদস্য পদে ৬৯ জন এবং সংরক্ষিত সদস্য পদে ১৯ জন প্রার্থী জয়ী হয়েছেন।

ফেনী ও ভোলায় চেয়ারম্যানসহ সদস্য সবাই বিনাপ্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হওয়ায় সেখানে ভোটের প্রয়োজন নেই। এছাড়া আইনি জটিলতায় স্থগিত রয়েছে চাঁপাইনবাবগঞ্জ ও নোয়াখালী জেলা পরিষদ নির্বাচন।

নির্বাচনকে ঘিরে নিয়োগ দেওয়া হয়েছে ৯৪ জন বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট। তারা ভোটগ্রহণের ২ দিন আগে থেকেই দায়িত্ব পালন করছেন। ভোটগ্রহণের পরের দিনও তারা দায়িত্ব পালন করবেন বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন।

এদিকে, নির্বাচনে ভোটারদের প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টির অভিযোগ এসেছে ইসিতে। সেটি তদন্তের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। বিশেষ করে বরিশাল জেলা পরিষদের নির্বাচনে ৩১ জন ভোটারকে আটকে রাখার অভিযোগ পেয়েছে কমিশন।

ইত্তেফাক/এসকে