রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

গাবখান চ্যানেলে ২ জাহাজের সংঘর্ষ, ডালবোঝাই জাহাজ দুর্ঘটনায় পতিত

আপডেট : ২৩ নভেম্বর ২০২৩, ২০:১৬

পিরোজপুরে কাউখালীতে গাবখান চ্যানেলে ২ জাহাজের সংঘর্ষে মুসুরডাল বোঝাই এমভি স্কাই নামের মুসুরডাল বোঝাই একটি কোস্টার জাহাজ ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। জাহাজের সামনের অংশ ফেটে অর্ধনিমজ্জিত অবস্থায় কাউখালী থানা সংলগ্ন সন্ধ্যা নদীর ডুবো চরে অবস্থায় জরুরি নোঙর করেছে।

বুধবার (২৩ নভেম্বর) রাত ১১টার দিকে গাবখান চ্যানেলের মাঝামাঝি স্থানে কাউখালী প্রান্ত আসা একটি এম.টি রূপসা-১ নামের তেলের ট্যাংকার সঙ্গে জাহাজের সঙ্গে সংঘর্ষ হয়।

বৃহস্পতিবার (২৩ নভেম্বর) সকালে কাউখালীর সন্ধ্যা নদীতে নোঙর করা এম.ভি. স্কাই নামের জাহাজটির মাস্টার মো. হান্নান জানান, চট্টগ্রাম থেকে ১৪শত টন টিসিবির মসুর ডাল নিয়ে এমভি স্কাই নামের কোষ্টার জাহাজ যশোরের নোয়াপাড়া যাচ্ছিল। 

তিনি জানান, কিছুদূর আসার পরে বুঝতে পারেন যে তাদের জাহাজের তলা ফেটে গেছে। পরে স্কাই জাহাজের মাস্টারের জাহাজের ১৬ জন কর্মচারী নিয়ে দ্রুত গতিতে জাহাজটি রাত ১২টার দিকে কাউখালী সন্ধ্যা নদীর লঞ্চ ঘাট এলাকায় অন্য একটি জাহাজের সঙ্গে এসে নোঙর করেন। 

জানা গেছে, চ্যানেল সরু থাকা এবং একই সময় একাধিক জাহাজ প্রবেশ করায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনার সংবাদ পেয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. স্বজল মোল্লাসহ কাউখালী থানা পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও নৌ-পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে উদ্ধার কার্যক্রম চালাতে গেলেও জাহাজ কর্তৃপক্ষ তাতে সম্মতি দেয়নি। দুপুরে বরিশাল থেকে বিআইডব্লিউটিসির একদল উদ্ধার এসে উদ্ধার কাজে যোগ দেয়। পরে পিরোজপুরের জেলা প্রশাসন চট্টগ্রামে জাহাজের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। তারা জানান, অন্য একটি মালবাহী জাহাজ ঘটনাস্থলে গিয়ে ডাল উদ্ধার করবে।

কাউখালী উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. স্বজল মোল্লা জানান, জাহাজটিকে পর্যাপ্ত নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছে। উদ্ধারের জন্য সব ধরনের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

পিরোজপুরের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ জাহেদুর রহমান জানান, ঘটনাটি শোনার পরপরই তিনি গিয়ে ক্ষতিগ্রস্ত জাহাজটি পরির্দশন করেছেন। তিনি জাহাজ কর্তৃপক্ষ এবং মালামালের মালিক দুপক্ষের সঙ্গে কথা বলেছেন।

এছাড়া বিআইডব্লিউটিসির উদ্ধারকারী জাহাজকে খবর দেওয়া হয়েছে। সব মালামাল নিরাপত্তার সঙ্গে এবং দ্রুত খালাস করে জাহাজটি যেন ডুবে না যায় তার জন্য ব্যবস্থা গ্রহণ করছেন বলে জানান জেলা প্রশাসক।

এদিকে এ দুর্ঘটনার কারণ অনুসন্ধানে অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মোহাম্মদ আমীনুল ইসলামকে প্রধান করে পাচঁ সদস্য বিশিষ্ট একটি তদন্ত কমিটি করা হয়েছে ।

ইত্তেফাক/পিও