বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৫ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

বন্ধু নির্বাচনে যা মাথায় রাখা ভালো

আপডেট : ২৬ নভেম্বর ২০২৩, ১৩:৫৬

বন্ধু মানেই আনন্দ,  কষ্ট ভাগ করে নেওয়া, একসঙ্গে বেড়ে ওঠা। পরিবারের মতোই জীবনের প্রতিটি পর্যায়ে মানুষের জীবনে বন্ধুর প্রয়োজন হয়। বই-পুস্তক, সিনেমা, নাটক থেকে বাস্তব জগৎ। বন্ধুত্বের ছোয়ায় জীবন কত সুন্দর হতে পারে, তা ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। আবার একইভাবে এই বন্ধুত্বের কারণে জীবনে বিপদও চলে আসতে পারে। তাই বন্ধু নির্বাচনের আগে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে আপনি কাকে আপনার বন্ধু তালিকায় যোগ করছেন। আর এক্ষেত্রে আপনার বন্ধু নির্বাচনের আগে যেসব বিষয়গুলোয় প্রাধান্য দেওয়া উচিত তা জেনে নিন: 

সততা
বন্ধু নির্বাচনের আগে আপনার অবশ্যই খেয়াল করতে হবে সে মানুষটি সৎ কী না।  তিনি যদি মিথ্যাচার করাতে অভ্যস্ত হয়ে থাকে, তবে সেই বন্ধুত্ব কখনোই আপনার জন্য সুখকর হবে না। আর অন্যদিকে একজন সৎ মানুষ কখনোই আপনার সঙ্গে বিশ্বাসঘাতকতা করবে না। আর আপনার খারাপ কামনাও করবে না। 

মানসিকতা
অবশ্যই বন্ধু নির্বাচনের আগে দেখে নিন সেই মানুষটির মানসিকতা কেমন। মন্দ মানসিকতার কেউ বন্ধু হিসেবে খুব একটা ভালো হবে না। তারা যেকোনো বিষয় নিয়েও বাজে মন্তব্য করতে পারবে, এমনকি তা আপনার বিষয় হলেও। তাই আপনার ভবিষ্যৎ বন্ধু কেমন মানসিকতার, তা আগে যাচাই করে নিন। 

বিশ্বাস
বন্ধুত্বের ভিত্তি গড়ে ওঠে বিশ্বাসের মাধ্যমে। তাই বন্ধু নির্বাচনে এমন কাউকে বাছাই করুন, যার সঙ্গে আপনার পারস্পরিক আস্থার সম্পর্ক গড়ে ওঠে। সেই সঙ্গে আপনার সবকিছু যে নিজের মধ্যে আগলে রাখবে। যদি আপনার বন্ধু আপনার ভরসাযোগ্য না হয়, তবে সে যেকোনো সময় আপনার জন্য বিপজ্জনক হতে পারে। তাই আপনি যাকে বিশ্বাস করতে পারবেন, তাকেই বন্ধু হিসেবে গ্রহণ করুন। 

স্বার্থ
জীবন-চলার পথে অনেককেই পাবেন, যারা চলার পথে আপনার বন্ধু হতে চাইবে শুধু নিজেদের স্বার্থের জন্য। স্বার্থ হাসিল হয়ে গেলে এদের টিকিটিও খুঁজে পাবেন না। বরং স্বার্থের জন্য আপনার পেছন থেকে ছুরি মারতেও পিছপা হবে না। স্বার্থের সম্পর্ক কখনো বন্ধুত্বপূর্ণ হতে পারে না। তাই বুঝে নিন আপনার বন্ধুটি কি নিঃস্বার্থভাবে আপনার পাশে আছে, না কি সুযোগ নিতেই বন্ধুত্ব গড়েছে।

পাশে থাকা
বিপদে বন্ধুর পরিচয়। তাই এমন বন্ধু নির্বাচন করুন, যে আপনার ভালো-খারাপ উভয় সময়ই আপনার পাশে থাকে এবং আপনাকে মানসিকভাবে সহযোগিতা করে।  আপনার ভালো সময় সারাক্ষণ চারপাশে ঘুরঘুর করলেও খারাপ সময় হাওয়া হয়ে যেতে পারে এমন কাউকে বন্ধু বা করাই ভালো। 

প্রভাব বিস্তার
এমন অনেক বন্ধু আছে, যারা সব সময় আপনার ওপর প্রভাব বিস্তার করতে চায় এবং আপনার জীবনের যাবতীয় ভালো-মন্দ সবকিছুর সিদ্ধান্ত তারাই নিতে থাকে। এমনটা হতে দেওয়া ঠিক নয়। তাই এমন কোনো বন্ধু নির্বাচন করবেন না, যে তার বন্ধুত্বের সীমা পেরিয়ে আপনার ব্যক্তিগত জীবনে প্রভাব ফেলে।

মন খুলে মিশতে পারা
হুট করে ঘটে যাওয়া কোনো কিছু যেমন টিকে থাকে না ঠিক বন্ধুত্বও টেকে না। তাই কারও সঙ্গে দু-চার দিনের পরিচয়েই বন্ধুত্ব করবেন না। তাকে আগে চিনুন তার সঙ্গে সময় কাটান, দেখুন সে আপনাকে কেমন বুঝছে আপনি তাকে কেমন বুঝছেন। বন্ধুত্ব গড়ুন তার সাথেই যে মন খুলে আপনার সঙ্গে মিশতে পারে। আপনাকে তার সব কথা বলতে পারে। 

বন্ধু ছাড়া জীবন অসম্ভব। তবে এই অমূল্য বস্তুও কখনো কখনো আপনার জীবনকে অতিষ্ঠ করে তুলতে পারে। যদি আপনার জীবনে সঠিক মানুষটি বন্ধু হয়ে না আসে তবে আপনার জীবন মূল্যহীন হয়ে যেতে পারে। আপনি মানসিক রোগীতেও পরিণত হতে পারেন। তাই বন্ধু নির্বাচনের সময় সতর্ক হোন। কাকে বন্ধু বানাচ্ছেন তা বানানোর আগে হাজারবার ভাবুন এর পরে হাতটি বাড়ান।

ইত্তেফাক/এআই

এ সম্পর্কিত আরও পড়ুন