বুধবার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১৪ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

দেনমোহরের টাকা নিয়ে কলহ, স্ত্রীকে হত্যা করে অনুতপ্ত স্বামী

আপডেট : ৩০ নভেম্বর ২০২৩, ১৪:৩৮

দেনমোহরের টাকা নিয়ে কলহকে কেন্দ্র করে কুড়িগ্রামের চিলমারীর রমনা ইউনিয়নের স্ত্রী আমেনা বেগমকে হত্যা করেন স্বামী শাহাবুদ্দিন মিয়া। এ ঘটনায় ওই স্বামীকে চট্টগ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

আজ বৃহস্পতিবার (৩০ নভেম্বর) সকালে কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি জানানো হয়।

পুলিশ সূত্র জানায়, চলতি বছরের ২৩ অক্টোবর চিলমারীর রমনা ইউনিয়নের আমেনা বেগমের (২৯) সঙ্গে পাশের উলিপুরের হাতিয়া এলাকার মো. শাহাবুদ্দিন মিয়া (৪৭) ভালোবেসে বিয়ে করেন। বিয়েতে দেনমোহর হিসেবে ধার্য করা হয় দেড় লাখ টাকা। বিয়ের কিছুদিনের মধ্যেই সেই টাকা নিয়ে দাম্পত্যকলহ শুরু হয়। পরবর্তীতে গত ৬ নভেম্বর দুপুরে প্রতিবেশীরা ঘরে তালা মারা দেখতে। সন্দেহ প্রবল হলে জানালায় উঁকি দিয়ে ওই নারীকে ঘরের ভেতরে শুয়ে থাকতে দেখেন তারা। তাকে ডাকাডাকি করেও সাড়াশব্দ আসেনি। এ সময় স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। পরবর্তীতে ঘরের তালা ভেঙে ওই নারীর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

ঘটনার পর থেকে স্বামীর কোনো হদিস পাওয়া যাচ্ছিল না। পরবর্তীতে চিলমারী থানার একটি টিম বিভিন্ন তথ্য সংগ্রহ করে চট্টগ্রামের সাতকানিয়া এলাকায় ঘাতক স্বামীর অবস্থান নিশ্চিত করে ও স্থানীয় পুলিশের সহায়তায় গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। এ সময় তার দেখানো হত্যার রেকি অনুযায়ী শ্বাসরোধ করে হত্যায় ব্যবহৃত কম্বল উদ্ধার করে পুলিশ।

কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (মিডিয়া) মো. রুহুল আমীন বলেন, ‘এটি কুড়িগ্রামের একটি চাঞ্চল্যকর হত্যাকাণ্ড। পুলিশের একটি টিমের তদন্তে হত্যার মূল ঘটনা উদ্ঘাটনসহ ঘাতক স্বামীকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়েছে কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশ।

ঘাতক স্বামী কুড়িগ্রাম চিফ জডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সোপর্দ করা হলে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন ঘাতক স্বামী। এ সময় স্ত্রীকে খুনের কারণে অনুতপ্তও হয়েছেন আসামি।

ইত্তেফাক/এইচএ