শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০
দৈনিক ইত্তেফাক

সশরীরে আচরণবিধি লঙ্ঘনের জবাব দিলেন নিক্সন চৌধুরী

আপডেট : ০১ ডিসেম্বর ২০২৩, ২২:১১

নির্বাচনী আচরণবিধি লঙ্ঘনের বিষয়ে সশরীরে হাজির হয়ে কারণ দর্শানোর নোটিশের জবাব দিয়েছেন ফরিদপুর-৪ (ভাঙ্গা-সদরপুর-চরভদ্রাসন) আসনের স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য ও যুবলীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মজিবুর রহমান চৌধুরী ওরফে নিক্সন। 

শুক্রবার (১ ডিসেম্বর) বিকালে নির্বাচন কমিশনের (ইসি) গঠন করা নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটির কাছে শোকজের জবার দেন তিনি। 

আদালতের পেশকার মো. শওকত বলেন, নিক্সন চৌধুরী শোকজের লিখিত জবাব দিয়ে গেছেন। এ ব্যাপারে বিচারবিশ্লেষণ করে অনুসন্ধান কমিটি পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেবে।

জানা গেছে, বেলা ৩টার দিকে নিক্সন চৌধুরী ওই বিচারকের কার্যালয়ে আসেন। এ সময় তার সঙ্গে জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শাহদাৎ হোসেন, সদরপুর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান কাজী শফিকুর রহমানসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন। 

কার্যালয় থেকে বেরিয়ে নিক্সন চৌধুরী সাংবাদিকদের বলেন, আমি নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটির কাছে লিখিতভাবে আমার বক্তব্য দিয়েছি। পাশাপাশি বলেছি, আর যেন আচরণবিধি লঙ্ঘন না হয়, সেদিকে আমরা নজর রাখব। আসলে আমাদের লোক অনেক বেড়ে গেছে। আমরা তো জনপ্রতিনিধি। আমরা তো কাউকে দাওয়াত দিয়ে আনিনি। আমরা নমিনেশন পেপার জমা দেব, কোথা থেকে কী পরিমাণ লোক এসেছে, আমার জানা নেই। আমরা তো কেউ এলে তাকে আটকে রাখতে পারি না। তবে এ কাজ আমি ইচ্ছা করে করিনি।

এর আগে বার্তা বাহকের মাধ্যমে নির্বাচনী অনুসন্ধান কমিটি নিক্সন চৌধুরীকে কারণ দর্শানোর চিঠি পাঠায়। 

নির্বাচনী এলাকার তিন উপজেলায় গাড়িবহরে মহড়া দিয়ে গত বুধবার রিটার্নিং কর্মকর্তার কাছে মনোনয়নপত্র জমা দেন নিক্সন চৌধুরী। মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার আগে আড়াই শতাধিক মাইক্রোবাস ও দুই শতাধিক মোটরসাইকেলের বহর নিয়ে নিয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে আসেন তিনি। এ সময় ওই এলাকার বিভিন্ন সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

ইত্তেফাক/পিও