বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১
The Daily Ittefaq

ভারতগামী তেলবাহী ট্যাংকারে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা, দায় স্বীকার হুতিদের

আপডেট : ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ০৮:৩২

লোহিত সাগরে ভারতগামী একটি ব্রিটিশ তেল ট্যাংকারে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার দায় স্বীকার করল ইরান- সমর্থিত ইয়েমেনের হুতিরা। শনিবার এক বিবৃতিতে এই তথ্য জানিয়েছেন গোষ্ঠীটির সামরিক মুখপাত্র ইয়াহিয়া সারিয়া। পোলাক্স নামের তেল বহনকারী ঐ ট্যাংকারটিতে শুক্রবার হামলা করেছিল তারা। এর আগে, শুক্রবার লোহিত সাগরে পানামানিয়ার পতাকাবাহী একটি ট্যাংকারে ক্ষেপণাস্ত্র হামলার কথা জানিয়েছিল মার্কিন পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তাদের মতে, অপরিশোধিত তেল বহনকারী ঐ ট্যাংকারটি ভারতের উদ্দেশ্যে যাত্রা করেছিল।

মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্ট জানিয়েছে, ইয়েমেন থেকে উৎক্ষেপণ করা ক্ষেপণাস্ত্রটি দেশটির একটি বন্দরের কাছ দিয়ে যাওয়া এম/টি পোলাক্সে আঘাত হানে।

শুক্রবার ইউনাইটেড কিংডম মেরিটাইম ট্রেড অপারেশনস (ইউকেএমটিও) এজেন্সি এবং ব্রিটিশ মেরিটাইম সিকিউরিটি ফার্ম অ্যামবে জানিয়েছিল, ইয়েমেনের কাছে মোখা বন্দরের কাছে একটি পানামা-পতাকাবাহী ট্যাংকারে হামলার খবর পেয়েছে তারা।

ট্যাংকারটি বন্দরটির উত্তর- পশ্চিমে ৭২ নটিক্যাল মাইল (১৩৩ কিলোমিটার) দূরে ছিল। অ্যামবে জানিয়েছিল, হামলায় 'ট্যাংকারটির সামান্য ক্ষতি হয়েছে। তবে এটির ক্রুরা নিরাপদ এবং অক্ষত রয়েছেন।

স্টেট ডিপার্টমেন্টের এক মুখপাত্র বলেন, আন্তর্জাতিক শিপিংয়ের ওপর অনাচার হামলার আরেকটি উদাহরণ এটি। হামলা বন্ধের আহ্বান জানিয়ে অসংখ্য যৌথ ও আন্তর্জাতিক বিবৃতির দেওয়ার পরও তা অব্যাহত রেখেছে হুতিরা।

এলএসইজি এর তথ্য অনুসারে, গত ২৪ জানুয়ারি রাশিয়ার কৃষ্ণ সাগর বন্দর শহর নভোরোসিস্ক থেকে যাত্রা শুরু করেছিল এম/টি পোলাক্স। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ট্যাংকারটি ভারতের পূর্ব ওড়িশা রাজ্যের পারাদ্বীপ ছাড়ার কথা ছিল? পারাদ্বীপে ইন্ডিয়ান অয়েল কোম্পানির তেল শোধনাগার যেখানে প্রতিদিন ৩ লাখ ব্যারেল তেল পরিশোধন করা হয়।

এলএসইজি ডেটা অনুসারে, ট্যাংকারটি ওশানফ্রন্ট মেরিটাইম কো এসএ এর মালিকানাধীন এবং সি ট্রেড মেরিন এসএ পরিচালিত। এই সংস্থাগুলোর প্রতিনিধিদের এ বিষয়ে অবিলম্বে মন্তব্য করার জন্য বলা হলেও তাদের কোনো সাড়া পাওয়া যায়নি।

ফিলিস্তিনির অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকায় ইসরাইলি আগ্রাসনের প্রতিবাদে লোহিত সাগরের জাহাজগুলোতে হামলা চালাচ্ছে হুতিরা। বৃহস্পতিবার একটি টেলিভিশন ভাষণে হুতি নেতা আব্দুলমালিক আল-হুতি বলেন, আমাদের অপারেশনগুলো শত্রুদের উপর একটি বড় ধরনের প্রভাব ফেলছে। এটি একটি দুর্দান্ত সাফল্য এবং সত্যিকারের বিজয়।

ইত্তেফাক/এনএন