মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ১১ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

এক ডগায় ১৮ লাউ, দেখতে উৎসুক জনতার ভিড়

আপডেট : ০১ মে ২০২৪, ১০:২৫

কুড়িগ্রামের ফুলবাড়ীতে ইসমাইল হোসেন (৪৭) নামের এক কৃষকের লাউগাছের একটি বোঁটায় ১৮টি লাউ ধরেছে। এরমধ্যে বেশিরভাগই খাওয়ার উপযোগী। বসতভিটার রান্নাঘরের চালে এমন লাউ দেখে উৎসুক জনতা ভিড় করছেন।

ইসমাইল হোসেন ফুলবাড়ী সদর ইউনিয়নের কবিরমামুদ কদমেরতল এলাকার বাসিন্দা।

কৃষক ইসমাইল হোসেন জানান, সাত থেকে আট মাস আগে বাজার থেকে একটি লাউগাছের চারা কিনে আনেন তিনি। তারপর একটি বস্তার মধ্যে জৈব সার ও মাটি ভরে লাউয়ের চারাটি সেখানে রোপন করেন। কিছুদিন পর চারা গাছটি বেড়ে উঠলে রান্না ঘরের চালে লাউয়ের ডগা উঠিয়ে দেন তিনি। এক পর্যায়ে লাউ গাছটি গোটা চালে ছড়িয়ে যায় এবং এ পর্যন্ত ১০ থেকে ১৫টি লাউ ওই গাছ থেকে ছিড়ে তারা রান্না করে খান। কিন্তু গত ১৫ দিন আগে গাছটির গোড়ার দিকের একটি ডগায় একসঙ্গে অনেক লাউয়ের জালি দেখতে পান তিনি। পরে গুনে দেখেন সেখানে একসঙ্গে ১৮টি জালি লাউ রয়েছে। লাউয়ের জালি গুলো বর্তমানে আস্তে আস্তে বড় হচ্ছে।  

তিনি আরও বলেন, এক ডগায় একসঙ্গে ১৮টি লাউ ধরার খবর শুনে প্রতিদিনই আশপাশের অনেকেই আসছেন লাউগুলো দেখতে। 

লাউ দেখতে আসা কবির মামুদ গ্রামের মিথুন মিয়া ও ফজলুল হক জানান, লাউ গাছের একটি ডগায় একসঙ্গে এত লাউ কোনদিন দেখিনি। আজ লাউগুলো দেখে খুবই ভালো লাগছে।

একই এলাকার ফিরোজ ও একরামুল হক জানান, জীবনের এই প্রথম একসঙ্গে একটি ডগায় ১৮ টি লাউ ধরা দেখলাম। আল্লাহর কৃপায় সব হয়। 

এ প্রসঙ্গে উপজেলা কৃষি অফিসার মোছা. নিলুফা ইয়াছমিন জানান, কৃষক ইসমাইল হোসেনের লাউগাছের একটি ডগায় ১৮টি লাউ ধরার খবরটি শুনেছি এবং ছবিও দেখেছি। এটা জেনেটিক সমস্যার কারণে হয়ে থাকে। এটি অস্বাভাবিক কিছু নয়, তবে তা কৃষকের জন্য খুবই ভাল। আমি আজকালের মধ্যে সেখানে যাব এবং এটা নিয়ে আমরা কাজ করবো।

ইত্তেফাক/এসজেড