মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০২৪, ৪ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

চুরির অপবাদে হাত-পা বেঁধে দুই শিশুকে নির্যাতন, থানায় অভিযোগ

আপডেট : ১৯ মে ২০২৪, ২০:২২

লালমনিরহাটে সুপারি চুরির অপবাদে হাত-পা বেঁধে মুখে স্কচটেপ লাগিয়ে আসিফ (৮) ও শরিফুল (৯) নামের দুই শিশুকে অমানুষিক নির্যাতনের অভিযোগ উঠেছে এক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে।

শুক্রবার (১৭ মে) রাতে লালমনিরহাট সদর উপজেলার হারাটি ইউনিয়নের ওকড়াবাড়ির খামারবাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। শনিবার (১৮ মে) এ ঘটনায় বিচার চেয়ে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে লালমনিরহাট সদর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন ভুক্তভোগীর পরিবার।

অভিযুক্ত সাগর ভেন্ডার একই এলাকার মৃত আইয়ুব আলী ভেন্ডারের ছেলে।

জানা গেছে, শুক্রবার বিকালে দুই শিশু ওকড়াবাড়ি বাজার সংলগ্ন তাদের নিজ এলাকায় খেলা করছিল। এ সময় ওই এলাকার স্ট্যাম্প বিক্রেতা সাগর সুকৌশলে দুই শিশুকে ডেকে নিয়ে একটি ভুট্টা ক্ষেতের ভেতরে নিয়ে যায়। সেখানে তাদের দুজনকে পাশবিক নির্যাতন চালানো হয়। তাদের চিৎকারে এলাকাবাসী এগিয়ে এলে তাদেরকে সাগর তার নিজ বাড়িতে নিয়ে হাত-পা বেঁধে মুখ স্কচটেপ দিয়ে বেধড়ক মারপিট করে। হাতে পায়ে ধরেও ক্ষান্ত হয়নি সাগর। অবশেষে শিশুরা অজ্ঞান হয়ে পড়লে বাড়ি থেকে সাগর ছটকে পড়েন। পরে স্থানীয়রা শুক্রবার রাতে আহত দুই শিশুকে উদ্ধার করে লালমনিরহাট সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন। এ ঘটনায় আহত এক শিশুর মা বাদী হয়ে লালমনিরহাট সদর থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

শিশু আসিফের মা আছমা বেগম কান্না জড়িত কণ্ঠে বলেন, সাগর মানুষ নয়। তাকে পশু বললেও ভুল বলা হবে। সে একটা পশুর চেয়েও অধম। মাদক সেবন করে আমার সন্তানকে অমানুষিক নির্যাতন করেছে।

অভিযুক্ত সাগরের মুঠোফোনে যোগাযোগ করা হলে তিনি সাংবাদিক পরিচয় জানতে পেরে ফোন কেটে দেন। ফলে তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

লালমনিরহাট সদর থানার ওসি ওমর ফারুক বলেন, অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ইত্তেফাক/পিও