শনিবার, ১৫ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

বাইডেন ও শি’কে শান্তি সম্মেলনে যোগ দেওয়ার আহ্বান জেলেনস্কির

আপডেট : ২৬ মে ২০২৪, ২১:৪১

মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন ও চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিংকে শান্তি সম্মেলনে যোগদানের জন্য আহ্বান জানিয়েছেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি। দীর্ঘ ২৭ মাস ধরে রাশিয়ার আগ্রাসনের বিরুদ্ধে লড়াই করছে ইউক্রেন।

রোববার এই আহ্বান জানিয়েছেন জেলেনস্কি। খবর রয়টার্সের।

আগামী মাসে সুইজারল্যান্ডে অনুষ্ঠিত শান্তি সম্মেলনে নেতৃত্ব দেবে ইউক্রেন। তাই যতগুলো দেশকে সম্ভব আমন্ত্রণ জানানোর প্রচেষ্টা চালাচ্ছে কিয়েভ। সম্মেলনের লক্ষ্য যুদ্ধ বন্ধ করার উপায় খোঁজা এবং রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে বৈশ্বিক মতামত সংগ্রহ করা। সম্মেলনে পুতিনকে আমন্ত্রণ জানানো হয়নি।

ইউক্রেনের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় শহর খারকিভে ইংরেজি ভাষায় রেকর্ড করা একটি ভিডিও বার্তায় জেলেনস্কি এই আহ্বান জানিয়েছেন। ভিডিওতে দেখা গেছে, বৃহস্পতিবার রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলায় ধ্বংস হয়ে যাওয়া একটি প্রিন্টিং হাউজের পুড়ে যাওয়া ধ্বংসাবশেষের সামনে দাঁড়ানো তিনি। সম্মেলনে ৮০টির বেশি দেশ অংশ নেবে বলেও জানিয়েছেন জেলেনস্কি।

তবে বাইডেন সম্মেলনে থাকবেন কিনা তা স্পষ্ট নয়। মস্কোর ঘনিষ্ঠ বেইজিংও তাতে যোগ দেবে কিনা সেটিও নিশ্চিত নয়।

জেলেনস্কি বলেন, ‘আমি বিশ্বের নেতাদের কাছে আবেদন করছি যারা এখনো গ্লোবাল পিস সামিটের বৈশ্বিক প্রচেষ্টা থেকে দূরে রয়েছেন- বিশেষ করে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট বাইডেন এবং চীনের প্রেসিডেন্ট শি। দয়া করে, শান্তি প্রতিষ্ঠায় আপনাদের নেতৃত্ব দেখান। প্রকৃত শান্তি, কোনো যুদ্ধবিরতি নয়।’

বিশ্বে আসলে কে যুদ্ধের অবসান করতে চায় এই সম্মেলনের মাধ্যমে সেটিই প্রমাণ পাবে বলে আশাবাদী জেলেনস্কি।

গত সপ্তাহে রাশিয়ান সূত্র রয়টার্সকে বলেছিল, সমঝোতামূলক যুদ্ধবিরতির মাধ্যমে ইউক্রেনের যুদ্ধ বন্ধ করতে প্রস্তুত পুতিন। এর প্রতিক্রিয়ায় ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্রো কুলেবা বলেছেন, শান্তি সম্মেলনকে পথচ্যুত করার চেষ্টা করছেন পুতিন। কারণ সম্মেলনের সফলতাকে ভয় পাচ্ছেন তিনি।

ইত্তেফাক/এসএটি