শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৮ আষাঢ় ১৪৩১
The Daily Ittefaq

গাজীপুরে মহানগর আওয়ামী লীগে ক্ষোভ

সম্মেলনের দেড় বছরেও হয়নি পূর্ণাঙ্গ কমিটি

আপডেট : ০৯ জুন ২০২৪, ০৭:০০

গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল ২০২২ সালের ১৯ নভেম্বর। এরপর এক বছর ছয় মাস ১৮ দিন পার হলেও পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন না হওয়ায় ক্ষোভ ও হতাশা বাড়ছে নেতাকর্মীদের মধ্যে। গতি হারাচ্ছে দলীয় কর্মকাণ্ডের।

মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলনের আগে বলা হয়েছিল, নগরীর ৯টি থানা ইউনিটের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন করা হবে। কিন্তু মাত্র দুটি থানার পূর্ণাঙ্গ কমিটি এবং তিনটি থানার সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নাম ঘোষণা দিয়েই সম্মেলন শেষ হয়। সম্মেলনে নির্ধারণ করা হয়েছিল সব থানা ইউনিটের কমিটি দ্রুতই ঘোষণা করা হবে। অথচ মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলন শেষ হওয়ার এক বছর ছয় মাস আঠারো দিন পার হলেও করা হয়নি সাতটি থানা ইউনিটের পূর্ণাঙ্গ কমিটি। এ নিয়ে ঐসব ইউনিটের সর্বস্তরের নেতা-কর্মীদের ক্ষোভ ও হতাশার অন্ত নেই।

গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলনের আগে কোনাবাড়ি ও কাশিমপুর থানা আওয়ামী লীগের সম্মেলন হলেও পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হয় দীর্ঘদিন পর। এছাড়া বাসন, গাছা, পূবাইল থানা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে কেবল সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের নাম ঘোষণা করা হলেও পূর্ণাঙ্গ কমিটি আজ পর্যন্ত গঠিত হয়নি। একইভাবে সম্মেলন হলেও কমিটি হয়নি টঙ্গী পূর্ব, টঙ্গী পশ্চিম থানা এবং কাউলতিয়া সাংগঠনিক থানা আওয়ামী লীগের কমিটি। এতে সংশ্লিষ্ট থানা ইউনিট আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীদের মধ্যে ক্ষোভ ও হতাশা সৃষ্টি হয়েছে।

গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয় গত ২০২২ সালের ১৯ নভেম্বর। এ সম্মেলনে অ্যাডভোকেট আজমত উল্লাহ খানকে সভাপতি ও আতাউল্ল্যাহ মণ্ডলকে সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করা হয়। থানা ইউনিটগুলোর মধ্যে গত ২০২২ সালের ২৮ নভেম্বর কেবল সদর মেট্রোথানা আওয়ামী লীগের সম্মেলনে শুধু সভাপতি পদে অ্যাডভোকেট ওয়াজ উদ্দিন মিয়ার নাম ঘোষণা করা হয়। কাউলতিয়া সাংগঠনিক থানা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন হয়েছিল ওই বছরের ১০ নভেম্বর। সম্মেলনের দ্বিতীয় পর্বে কমিটি ঘোষণা করার কথা থাকলেও সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে একাধিক প্রার্থী থাকায় অদ্যাবধি পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হয়নি। সর্বশেষ ওই বছরের ২ ডিসেম্বর টঙ্গী পূর্ব ও টঙ্গী পশ্চিম থানা আওয়ামী লীগের যৌথ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হলেও কোনো কমিটি ঘোষণা করা হয়নি।

এদিকে দীর্ঘদিনেও মহানগরসহ থানা পর্যায়ের আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠিত না হওয়ায় নেতাকর্মীদের মধ্যে চাপা ক্ষোভ ও হতাশার পাশাপাশি দ্বিধাদ্বন্দ্ব দেখা দিয়েছে। এর বিরূপ প্রভাব গত জাতীয় সংসদ নির্বাচনেও দেখা গেছে। তাই তৃণমূল নেতাকর্মীদের জোরালো দাবি—যত তাড়াতাড়ি সম্ভব সংগঠনকে শক্তিশালী করতে মহানগরসহ সব থানা পর্যায়ের আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠনের।

এ ব্যাপারে গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আজমত উল্লাহ খান বলেন, মহানগরসহ সব থানা পর্যায়ের আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি গঠন চূড়ান্ত পর্যায়ে রয়েছে। আশা করি, শিগগিরই মহানগরীর সিনিয়র নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করে আসন্ন পবিত্র ঈদুল আজহার আগেই সব থানার পূর্ণাঙ্গ কমিটি ঘোষণা করা হবে। এতে কারো মনে কোনো ক্ষোভ বা উৎকণ্ঠা থাকার কথা নয়।

ইত্তেফাক/এমএএম